Wednesday, July 24, 2024
বাড়িখেলাকোপা আমেরিকাতেই মেসির শেষ নয়, আশায় লিসান্দ্রো

কোপা আমেরিকাতেই মেসির শেষ নয়, আশায় লিসান্দ্রো

স্যন্দন ডিজিটেল ডেস্ক, ৭ জুন: মেসি নিজেই বলেছেন, ২০২৬ সালের বিশ্বকাপ খেলা তার জন্য খুবই কঠিন হবে। সে সময় তার বয়স হবে ৩৯। ওই বয়সে মাঠের লড়াইয়ে নিজের সেরাটা দেওয়া যে সহজ কথা নয় ভালো করেই জানা আর্জেন্টিনা অধিনায়কের।তবে লিসান্দ্রো মনে করছেন, শারীরিক ও মানসিকভাবে দারুণ অবস্থায় আছেন মেসি। সময়টা উপভোগ করছেন তাদের সেরা খেলোয়াড়। জাতীয় দলের হয়ে সতীর্থর এখনই শেষ দেখছেন না তিনি।কোপা আমেরিকায় খেলতে এখন যুক্তরাষ্ট্রে আছে আর্জেন্টিনা। ফ্লোরিডায় দলের সঙ্গে থাকা ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ডিফেন্ডার লিসান্দ্রো সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে মেসির ভবিষ্যৎ নিয়ে জানিয়েছেন তার ভাবনা।“তিনি খুবই শান্ত, সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিক হচ্ছে প্রতিটা দিন উপভোগ করছেন। দলের সঙ্গে থাকতে পেরে খুব ভালো লাগছে, আমাদের সবার মধ্যে দারুণ সম্পর্ক রয়েছে।”

“যখন কেউ দলের সঙ্গে থাকে, তখন সে খুব খুশি থাকে। ঘরের মতো অনুভব করি, যা গুরুত্বপূর্ণ। আমরা এটাকে আর্জেন্টিনার হয়ে তার (মেসির) শেষ টুর্নামেন্ট হিসেবে দেখছি না। আমরা তাকে খুশি এবং একটি দারুণ পর্যায়ে দেখছি। এটুকুই আমি আপনাদের বলতে পারি।”যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা ও মেক্সিকোয় অনুষ্ঠেয় বিশ্বকাপে খেলার সম্ভাবনাকে মেসি ‘উড়িয়ে দিলেও’ আর্জেন্টিনা কোচ লিওনেল স্কালোনি সেটা বিশ্বাস করতে নারাজ। আটবারের ব্যালন দ’র জয়ী আরেকটি বৈশ্বিক আসরে খেলবেন বলে আশায় আছেন বিশ্বকাপজয়ী এই কোচ। সমর্থকদের তাই এখনই মেসির অবসর নিয়ে না ভেবে তার খেলা উপভোগ করার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।“আমরা আর্জেন্টাইনরা খুবই দুঃখবিলাসী। যখন মেসি খেলার মধ্যে আছে তখনও যে দিন সে থাকবে না সেটার কথা ভাবছি আমরা।”“আসুন, তাকে উপভোগ করি এবং এরপর কী হয় তা দেখা যাবে। আমি মনে করি, সে এখন যা করছে তা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আর সবার জন্য, শুধু আর্জেন্টিনার জন্য নয়, কারণ শেষ পর্যন্ত লিও তাদের জন্যই খেলে যারা ফুটবল পছন্দ করে। তবে একদিন তার অবসরের ঘোষণাটি আসবে।”মেসির নেতৃত্বে ২০২১ কোপা আমেরিকা জিতেছে আর্জেন্টিনা। পরের বছর তিন যুগের খরা কাটিয়ে কাতার বিশ্বকাপে ঘরে তুলেছে বিশ্ব সেরার মুকুট। ২০০৫ সালে দলটির হয়ে অভিষিক্ত এই ফুটবলার এখন পর্যন্ত ১৮০ ম্যাচে ১০৬ গোল করেছেন। আন্তর্জাতিক ফুটবলে দেশটির সর্বোচ্চ স্কোরার তিনি।

বার্সেলোনা ও পিএসজির সাবেক তারকা এখন খেলছেন যুক্তরাষ্ট্রের দল ইন্টার মায়ামির হয়ে। সেখানেও সময়টা ভালোই কাটছে তার। এবারের মেজর লিগ সকারে ১২ ম্যাচে ১১ গোল ও ১২ অ্যাসিস্ট করে ফেলেছেন তিনি। দুর্দান্ত এই ফুটবলারকে দলে পাওয়াকে গুরুত্বপূর্ণ হিসেবে দেখছেন লিসান্দ্রো।“লিওর সঙ্গে খেলা আমাদের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটি বাড়তি পাওয়া। লিও কিসের প্রতিনিধিত্ব করেন, সবাই সেটা জানে। তিনি বিশ্বের সেরা। তাকে আমাদের দলের হয়ে খেলানো নিঃসন্দেহে একটি বাড়তি পাওয়া। তার সঙ্গে প্রতিটা দিন ভাগাভাগি করতে পেরে আমরা খুবই খুশি।”কোপা আমেরিকার শিরোপা ধরে রাখার অভিযান শুরু করার আগে একুয়েডর ও গুয়াতেমালার সঙ্গে দুটি প্রীতি ম্যাচ খেলবে আর্জেন্টিনা। লিসান্দ্রো বললেন, কাউকে নিয়ে চিন্তা না করে নিজেদের নিয়ে ভাবছেন তারা। দলটির একটাই লক্ষ্য, আরেকটি শিরোপা জেতা।“কোপা আমেরিকা জটিল একটি টুর্নামেন্ট। নিঃসন্দেহে সবাই আমাদের হারাতে চায়, কারণ আমরা বর্তমান চ্যাম্পিয়ন।”

“তবে আমরা যদি কয়েকটা ‘ফেভারিট’ বা ‘শক্তিশালী দল’ নিয়ে চিন্তা করি, তাহলে আমরা শুধু নিজেদেরই ক্ষতি করছি। জানি, আমরা কিসের প্রতিনিধিত্ব করি, তাই আমাদের জন্য প্রতিটি ম্যাচই ফাইনাল। আমাদের লক্ষ্য কোপা আমেরিকা জেতা।”কোপা আমেরিকার শিরোপা ধরে রাখতে দল নিয়ে আত্মবিশ্বাসী লিসান্দ্রো। তার মতে, লক্ষ্য পূরণ করতে তৈরি পুরো দল।“নিঃসন্দেহে সবাই আমাদের হারাতে চায়। তবে আমরা প্রস্তুত এবং এর জন্য কঠোর পরিশ্রম করছি। অবিশ্বাস্য খেলোয়াড়দের নিয়ে আমাদের দারুণ একটা দল আছে। প্রশিক্ষণের সময় প্রতিভা এবং প্রচেষ্টা দেখানো দারুণ ব্যাপার। আমরা প্রস্তুত।”আটলান্টায় আগামী ২০ জুন কানাডার বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে এবারের কোপা আমেরিকা শুরু করবে আর্জেন্টিনা।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য