Thursday, August 18, 2022
বাড়িজাতীয়ভারত এখন সময়সীমার মধ্যে আবদ্ধ থেকে ভয় পেতে ইচ্ছুক নয় : প্রধানমন্ত্রী

ভারত এখন সময়সীমার মধ্যে আবদ্ধ থেকে ভয় পেতে ইচ্ছুক নয় : প্রধানমন্ত্রী

কেদারনাথ, ৫ নভেম্বর (হি.স.): ভারত এখন আর সময়সীমার মধ্যে আবদ্ধ থেকে ভয় পেতে ইচ্ছুক নয়। দেশ বড় লক্ষ্য নির্ধারণ করছে, কঠিন সময়সীমা নির্ধারণ করছে। কেদারনাথে বললেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। শুক্রবার সকালে কেদারনাথে বিভিন্ন পুনঃউন্নয়নমূলক প্রকল্পের উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ১৩০ কোটি টাকার বিভিন্ন পুনঃউন্নয়নমূলক প্রকল্পের মধ্যে রয়েছে সরস্বতী রিটেইনিং ওয়াল আস্থাপথ এবং ঘাট, মন্দাকিনী রিটেইনিং ওয়াল আস্থাপথ, তীর্থ পুরোহিত হাউস এবং মন্দাকিনী নদীর উপর গরুড় চট্টি সেতু।

এদিন কেদারনাথ মন্দির চত্বরে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, “আপনারা সবাই আদি শঙ্করাচার্য সমাধির উদ্বোধনের সাক্ষী থাকলেন। তাঁর ভক্তরা এখানে উপস্থিত রয়েছে। দেশের সমস্ত মঠ এবং ‘জ্যোতির্লিঙ্গ’ আমাদের সঙ্গে সংযুক্ত হল।” প্রধানমন্ত্রী আরও বলেছেন, “২০১৩ সালে ধ্বংসলীলার পর মনে করা হয়েছিল কেদারনাথ পুনর্নির্মাণ করা যায় কি-না! কিন্তু আমি নিজে মনে করতাম, কেদারনাথ আবারও নতুন করে গড়ে উঠবে।” দিল্লি থেকে নিয়মিত কেদারনাথের পুনঃউন্নয়ন কাজ পর্যালোচনা করেছেন বলেও জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। তাঁর কথায়, “আমি ড্রোন ফুটেজের মাধ্যমে বিভিন্ন কাজের অগ্রগতি পর্যালোচনা করেছি। আমি এখানে সমস্ত ‘রাওয়ালদের’ ধন্যবাদ জানাতে চাই।”

প্রধানমন্ত্রী আরও বলেছেন, “যেমনটা হওয়া উচিত ছিল, সেভাবেই এখন আমাদের সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য, বিশ্বাসের কেন্দ্রগুলিকে দেখা হচ্ছে। পূর্ণ গৌরবের সঙ্গে অযোধ্যায় ভগবান রামের একটি বিশাল মন্দির তৈরি হচ্ছে, অযোধ্যা ফিরে পাচ্ছে নিজস্ব গৌরব। দু’দিন আগেই অযোধ্যায় দীপোৎসবের আয়োজন গোটা বিশ্ব দেখেছে। ভারতের প্রাচীন সাংস্কৃতিক রূপ কেমন ছিল, আমরা তা এখন কল্পনা করতে পারি। একইভাবে বিশ্বনাথ ধামের কাজ দ্রুত গতিতে সম্পূর্ণ হওয়ার দিকে এগিয়ে চলেছে।” প্রধানমন্ত্রী এদিন আরও বলেছেন, “এখন দেশ বড় লক্ষ্য নির্ধারণ করছে, কঠিন সময়সীমা নির্ধারণ করছে, তাই কিছু মানুষ বলছে, এত অল্প সময়ে এসব হবে কী করে! হবে না-কি হবে না! তখন আমি বলি, ভারত এখন আর সময়সীমার মধ্যে আবদ্ধ থেকে ভয় পেতে ইচ্ছুক নয়।” প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, চারধাম সড়ক প্রকল্পের কাজ দ্রুত গতিতে চলছে। ভবিষ্যতে গাড়ির মাধ্যমে ভক্তদের যাতে কেদারনাথে আসতে পারেন, সেই লক্ষ্যে কাজ চলছে।”

শুক্রবার অনেক সকালেই দেহরাদূন বিমানবন্দরে পৌঁছে যান প্রধানমন্ত্রী। বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানান উত্তরাখণ্ডের রাজ্যপাল লেফটেন্যান্ট জেনারেল (অবসরপ্রাপ্ত) গুরমিত সিং ও মুখ্যমন্ত্রী পুষ্কর সিং ধামি-সহ অন্যান্যরা। সেখান থেকে কেদারনাথে পৌঁছে যান প্রধানমন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানানোর জন্য অনেক আগে থেকেই সেজে উঠেছিল কেদারনাথ। কেদারনাথ মন্দিরে অত্যন্ত নিষ্ঠার সঙ্গে রীতি মেনে ভগবান শিবের পূজার্চনা করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। পূজার্চনার পর আরতি করেছেন মোদী। তারপর কেদারনাথ মন্দির প্রদক্ষিণ করেন প্রধানমন্ত্রী।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য