Tuesday, April 16, 2024
বাড়িরাজ্য ১১ মার্চ ফটিকরায়ে উদ্বোধন হচ্ছে সিঙ্গেরি বালাজি মন্দির, শ্রী সারদাম্বা মন্দির ও...

 ১১ মার্চ ফটিকরায়ে উদ্বোধন হচ্ছে সিঙ্গেরি বালাজি মন্দির, শ্রী সারদাম্বা মন্দির ও আদি শঙ্করাচার্য মন্দির



কুমারঘাট, ৯ মার্চ (হি.স.) : কৈলাসহরবাসী তথা গোটা ঊনকোটি জেলাবাসীর দীর্ঘদিনের স্বপ্ন পূরণ হতে যাচ্ছে ১১ মার্চ সোমবার। ঊনকোটি জেলার ফটিকরায় বিধানসভার অন্তর্গত বিলাসপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের পেচারডহর গ্রামে মনু নদীর পাশে আগামী সোমবার উদ্বোধন হতে যাচ্ছে সিঙ্গেরি বালাজি মন্দির, শ্রী সারদাম্বা মন্দির ও আদি শঙ্করাচার্য মন্দির।

জানা গিয়েছে, মন্দির উদ্বোধনে উপস্থিত থাকবেন গুরু সেবা দুরিনা পদ্মশ্রী পুরস্কারপ্রাপ্ত তথা শ্রী সারদা পীঠম সিঙ্গেরি ট্রাস্টের চিফ এডভাইজার ড: ভি আর গৌরীশঙ্কর, শ্রী সারদা পীঠম সিঙ্গেরি গুরু সেবা নিরতা, সারদা পীঠম ট্রাস্টের সিইও এবং অ্যাডমিনিস্ট্রেটর গুরুসেভা নিরতা, অনুষ্ঠানে মুখ্য অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ডা: মানিক সাহা, সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন নাগাল্যান্ডের রাজ্যপাল এল এ গনেশান। এছাড়াও উপস্থিত থাকবেন রাজ্য সরকারের দুইজন মন্ত্রী সুধাংশু দাস ও টিংকু রায়।

এই উপলক্ষে ৯ মার্চ শনিবার দুপুরে মন্দিরের চূড়ান্ত পর্যায়ের প্রস্তুতি খতিয়ে দেখতে মন্দির প্রাঙ্গনে আসেন এলাকার বিধায়ক তথা মন্ত্রী সুধাংশু দাস। তিনি অনুষ্ঠান প্রাঙ্গণ পরিদর্শন শেষে সাংবাদিক সম্মেলন করেন। সাংবাদিক সম্মেলনে মন্ত্রী সুধাংশু দাস বলেন, উত্তর-পূর্ব ভারতে এই মন্দির প্রথম। এলাকার মানুষের জায়গা দানের ফলে এই স্থানে মন্দির তৈরি হয়েছে। এই মন্দির উদ্বোধন হওয়ার আগেই প্রায় দুই বছর থেকে এই মন্দির পরিদর্শন করতে পর্যটকরা আসছেন। এই মন্দির উদ্বোধন হলে ঊনকোটি জেলায় আরেকটি দর্শনীয় স্থান যুক্ত হবে।

মন্দিরকে কেন্দ্র করে মন্দিরের পাশেই গড়ে উঠেছে সিঙ্গেরি মঠের স্কুল। আগামী দিনে কর্তৃপক্ষ এই স্থানে হাসপাতাল তৈরীর পরিকল্পনা নিয়েছেন। মন্ত্রী বলেন, আগামী ১১ মার্চ সোমবার সকাল থেকেই মন্দিরে শুরু হবে পূজা। অনুষ্ঠানে প্রায় ৩০ হাজার লোকের প্রসাদ গ্রহণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। সন্ধ্যায় থাকবে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সাংবাদিক সম্মেলনে মন্ত্রী ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন অনুষ্ঠান কমিটির চেয়ারম্যান তথা কৈলাসহর কলেজের প্রাক্তন ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ অমৃত কুমার ভট্টাচার্য্য, চেন্নাই সিঙ্গেরি মঠের দায়িত্বপ্রাপ্ত তথা ত্রিপুরা সিঙ্গেরি মঠের ইনচার্জ জি এস পদ্মনাভন, স্থানীয় বিলাসপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান রতন সরকার প্রমুখ।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য