Monday, February 26, 2024
বাড়িরাজ্যপদ্ম চিহ্নে ভোট দেওয়ার আহ্বান রাজনাথ সিংয়ের

পদ্ম চিহ্নে ভোট দেওয়ার আহ্বান রাজনাথ সিংয়ের

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক। আগরতলা। ৭ ফেব্রুয়ারি : আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে খাঁটি করে ত্রিপুরায় বসে আছে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী থেকে শুরু করে বহু রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী। মঙ্গলবার ভোট প্রচারে রাজ্যে আসেন কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং। রাজ্য সফরে এসে ঝড়ো প্রচারে আরো গতি এনেছেন কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী। এদিন তিনি ১৪ বাধারঘাট মণ্ডলের এ ডি মিশন মাঠে এবং কৈলাশহর রামকৃষ্ণ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মাঠে অনুষ্ঠিত হয় বিজয় সংকল্প সমাবেশ। ১৪ বাধারঘাট বিধানসভা কেন্দ্রের বিজেপি মনোনীত প্রার্থী মিনারানী সরকারের সমর্থনে অনুষ্ঠিত হয় বিজয় সংকল্প সমাবেশ। ১৪ বাধারঘাট মণ্ডলের উদ্যোগে আয়োজিত এদিনের সমাবেশে প্রধান বক্তা হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং।

এছাড়া উপস্থিত ছিলেন বিধায়িকা অগ্নিমিত্রা পাল, বিজেপি প্রার্থী মীনারানী সরকার সহ অন্যান্য নেতৃত্ব। এখন বিভেদ রাখলে চলবে না। সবাইকে একত্রিত হয়ে সামনের দিকের লড়াইয়ে সামিল হতে হবে। কে দেশকে শক্তিশালী, উন্নত, সমৃদ্ধ করতে পারে তাঁর দিকেই সমর্থন যাওয়া উচিৎ। আর এটা করতে পারে কেবল বিজেপি। কোন প্রার্থীকে পৃথক ভাবে না দেখে বিজেপি দলকে দেখতে হবে। প্রার্থীর মধ্যে ভালো, খামতি থাকতে পারে। কিন্তু তারপরেও তারা বিজেপি প্রার্থী। তাই তাদের জয়ী করুন। বিজেপি দলে থেকে সঠিক ভাবে কাজ না করলে তাদের পদ থেকে সরিয়ে দিতে কুণ্ঠা বোধ করবে না দল। লক্ষ্মী বিরাজ করে কেবল মাত্র পদ্মেই। তাই পদ্ম চিহ্নে ভোট দেওয়ার আহ্বান জানান তিনি। প্রতিরক্ষা মন্ত্রী আরো জানান, মানুষের উৎসাহ দেখে মনে হচ্ছে আসন্ন নির্বাচনে ৫০ টি অধিক আসনে জয়ী হবে বিজেপি। পাশাপাশি সিপিআইএম -কে কটাক্ষ করে বলেন তারা বলছে সরকারি আসতে পারলে পুরনো পেনশন স্কিম চালু করা হবে। কিন্তু তারা কেরলে সরকার থাকার পরেও পুরনো পেনশন স্কিম চালু করছে না কেন ? কমিউনিস্ট এবং কংগ্রেস মানুষই চোখে ধুলো দিয়ে রাজনীতি করতে চাই। তাই সাহস থাকলে মানুষের চোখে চোখ রেখে রাজনীতি করার কথা বললেন রাজনাথ সিং। আরো বলেন, কেন্দ্রীয় সরকার যেসব সুবিধা গুলি জনগণের জন্য চালু করেছে সেগুলি ত্রিপুরার রাজ্যে সঠিকভাবে পালন হচ্ছে। বিশেষ করে দেশে প্রত্যেকটি পরিবারের মাথার উপর পাকা ছাদে ব্যবস্থা করছে বলে জানান রাজনাথ সিং।মঙ্গলবার কৈলাশহর রামকৃষ্ণ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মাঠে কৈলাসহর বিধানসভা কেন্দ্রের বিজেপি দলের মনোনীত প্রার্থী মবস্বর আলীর সমর্থনে বিজয় সংকল্প জনসভা অনুষ্ঠিত হয়।

এই বিজয় সংকল্প জনসভায় উপস্থিত  ছিলেন প্রতিরক্ষা রাজনাথ সিং , রাজ্যসভার সাংসদ  বিপ্লব কুমার দেব, ঊনকোটি জেলা বিজেপির সভাপতি পবিত্র দেবনাথ, কৈলাশহর মন্ডল সভাপতি সিদ্ধার্থ দত্ত , বিজেপি নেতা নীতিশ দে, চন্ডিপুর বিধানসভা কেন্দ্রের বিজেপি দলের মনোনীত প্রার্থী টিংকু রায় সহ অন্যান্যরা।  এই বিজয় সংকল্প জনসভায় দলীয় কর্মী সমর্থকদের উপস্থিতি ছিল লক্ষ্যণীয়। বক্তব্য রাখতে গিয়ে প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং রাজ্যের বিজেপি সরকারের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ তুলে ধরেন। এর নিরিখে ৫৩ কৈলাশহর বিধানসভা কেন্দ্রের বিজেপি দলের প্রার্থী এবং চন্ডিপুর বিধানসভা কেন্দ্রের বিজেপি দলের প্রার্থীকে বিপুল ভোটে জয়ী করার জন্য আহ্বান জানান। কংগ্রেস ও কমিউনিস্টদের সরকার রাজ্যে ছিল। সেই সময় রাজ্যের মানুষকে শোষণ করা হয়েছে। রাজ্যের উন্নয়ন ঘটানো হয়নি। তাই মানুষ ২০১৮ সালে পরিবর্তন এনেছে। ফের একবার বিজেপি সরকার গঠনের আহ্বান জানান প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং। আগামী দিনে ত্রিপুরা উত্তর পূর্বাঞ্চলের মধ্যে এক নম্বর রাজ্য হিসাবে উঠে আসবে বলে আশ্বাস দেন তিনি।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য