Tuesday, October 4, 2022
বাড়িরাজ্যচাকরিচ্যুত শিক্ষকের মামলা বাতিল

চাকরিচ্যুত শিক্ষকের মামলা বাতিল

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক। আগরতলা। ৩১ আগস্ট :  পশ্চিম জেলার জেলা দায়রা আদালত এই রিভিশন পিটিশনের শুনানি শেষে ২০২২ সালের ৬ আগস্ট,  পশ্চিম জেলার সিজেএম প্রদত্ত ২০২১ সালের ৯ আগস্টের আদেশকে সেট এসাইড করেন এবং এই মামলাটিকে বাতিলের আদেশ দেন। বুধবার সাংবাদিক সম্মেলন করে এই সংবাদ জানান আইনজীবী দেব ও আইনজীবী বিদ্যুৎ সূত্রধর। ২০২১ সালের জানুয়ারি মাসে চাকুরিচ্যুত ১০,৩২৩ শিক্ষক শিক্ষিকারা রাজধানীর সিটি সেন্টারের সামনে অনির্দিষ্ট কালের জন্য ধর্নায় বসে।

 ২৭ জানুয়ারি সকালে তাদেরকে প্রশাসনের পক্ষ থেকে উচ্ছেদ করা হয়। এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে ১০,৩২৩ শিক্ষকদের পক্ষ থেকে বিশ্বজিৎ বনিক পশ্চিম জেলার তৎকালীন পুলিশ সুপার মানিক দাস, তৎকালীন পশ্চিম থানার ওসি জয়ন্ত কর্মকার, জিরানিয়ার তৎকালীন মহকুমা পুলিশ আধিকারিক সুমন মজুমদার, আমতলির মহকুমা পুলিশ আধিকারিক অনির্বাণ দাস, তৎকালীন সদর মহকুমা শাসক প্রদীপ সাহা, সদর ডিসিএম আশিস বিশ্বাসের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন আদালতে। বিশ্বজিৎ বনিকের অভিযোগ ছিল তাদেরকে সিটি সেন্টারের সামনে থেকে বল পূর্বক উচ্ছেদ করা হয়েছে। এই অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে পশ্চিম জেলার সিজেএম বিবাদীগনের বিরুদ্ধে ২০২১ সালের ৯ আগস্ট কগনিজেন্স মামলা গ্রহণ করেন।পশ্চিম জেলার সিজেএম এই আদেশকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে পরবর্তী সময় আইনজীবী বিশ্বজিৎ দেব ও আইনজীবী বিদ্যুৎ সূত্রধর পশ্চিম জেলার জেলা দায়রা আদালতে রিভিশন পিটিশন দাখিল করেন।

 আইনজীবী বিশ্বজিৎ দেব ও আইনজীবী বিদ্যুৎ সূত্রধর আদালতে দাবি করেন বাদী যাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন তারা সকলে সরকারি কর্মচারী। যদি কোন সরকারি কর্মচারী কর্তব্যপালন করতে যাওয়ার পর তার বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ উঠে, তবে সংশ্লিষ্ট দপ্তর থেকে অনুমতি নিয়ে মামলা দায়ের করতে হয়। পশ্চিম জেলার জেলা দায়রা আদালত এই রিভিশন পিটিশনের শুনানি শেষে ২০২২ সালের ৬ আগস্ট,  পশ্চিম জেলার সিজেএম প্রদত্ত ২০২১ সালের ৯ আগস্টের আদেশকে সেট এসাইড করেন এবং এই মামলাটিকে বাতিলের আদেশ দেন। বুধবার সাংবাদিক সম্মেলন করে এই সংবাদ জানান আইনজীবী দেব ও আইনজীবী বিদ্যুৎ সূত্রধর।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য