Tuesday, October 4, 2022
বাড়িরাজ্যস্মার্ট সিটি মিশনের অন্তর্ভুক্ত তিনটি প্রকল্পের সূচনা করলেন মুখ্যমন্ত্রী

স্মার্ট সিটি মিশনের অন্তর্ভুক্ত তিনটি প্রকল্পের সূচনা করলেন মুখ্যমন্ত্রী

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক। আগরতলা। ১২ আগস্ট : শুক্রবার স্মার্ট সিটি মিশনের অন্তর্ভুক্ত তিনটি প্রকল্পের সূচনা করেন মুখ্যমন্ত্রী ডাঃ মানিক সাহা। এদিন মঠ চৌমুহনী থেকে এম বি বি কলেজ গেইট পর্যন্ত ১১ কিলোওয়াট ভোল্টের আন্ডার গ্রাউন্ড ক্যাবল পরিষেবা, এম বি বি কলেজে যাওয়ার রাস্তায় তিনটি পুকুরের সৌন্দর্যায়ন ও মঠ চৌমুহনী থেকে এম বি বি কলেজ গেইট পর্যন্ত নব নির্মিত রাস্তার সূচনা করেন তিনি। অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে মুখ্যমন্ত্রী আরও বলেন  সমগ্র ত্রিপুরা রাজ্যে প্রত্যক্ষ করে দেখা গেছে তাঁর মধ্যে একটা উদ্ভাবনী রয়েছে। এমবিবি কলেজের লেইকের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আগেও রাজ্যের মানুষ উপভোগ করেছে। কিন্তু এই লেইকের সৌন্দর্যায়ন বৃদ্ধি করে মানুষকে উপহার দেওয়ার কৃতিত্ব এই সরকারের বলে জানান মুখ্যমন্ত্রী।

প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা বিধায়ক বিপ্লব কুমার দেব বক্তব্য রেখে বলেন আগরতলা শহরের জল নিষ্কাশনের জন্য আরও তিনটি পাম্প হাউস বসানো হয়েছে। ৩০০ মিলিমিটার পর্যন্ত বৃষ্টি হলে দ্রুত যাতে জল নিষ্কাশন করা যায় তার ব্যবস্থা করেছে সরকার। পুরনো সরকার থাকলে তাদের শাখা সংগঠন গুলিকে দিয়ে কেবল আন্দোলন করাতো। এতে করে নতুন পাম্প হাউস ও জল নিষ্কাশন ব্যবস্থার কোন সুরাহা হত না। তাদের আদর্শ ছিল মানুষকে দুঃখে রাখা। তবেই তাদের রাজনৈতিক ব্যবসা চলবে। বিজেপি সেই মন্ত্রে বিশ্বাস করেন না বলে জানান বিধায়ক বিপ্লব কুমার দেব। মুখ্যমন্ত্রী এইদিন জানান স্মার্ট সিটি প্রকল্পে মাস্টার পাড়াতে পাকা ড্রেন নির্মাণ ও জল নিষ্কাশনের জন্য পাইপ লাইন বসানোর কাজ সম্পন্ন হয়ে গেছে। প্রতাপগড়ে পাম্প হাউজের মাধ্যমে জল নিষ্কাশনের কাজ সম্পন্ন হয়ে গেছে।

 জয়নগরে একটি পাম্প হাউজ নির্মাণের কাজ চলছে। রানী পুকুরের সৌন্দর্যায়নের কাজ প্রায় শেষের পথে। মঠ চৌমুহনী থেকে এমবিবি কলেজের গেট পর্যন্ত রাস্তা নির্মাণ, আন্ডার গ্রাউন্ড ক্যাবলের মাধ্যমে বিদ্যুৎ সরবরাহ ও তিনটি লেইকের সৌন্দর্যায়নের কাজ শেষে এইদিন উদ্বোধন করা হয়েছে। ফায়ার ব্রিগেড চৌমুহনি থেকে চেকপোস্ট পর্যন্ত রাস্তাটিও নতুনভাবে নির্মাণ করা হবে। ৪০ টি স্মার্ট বাস শেল্টারের নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হয়ে গেছে। আগরতলা শহরের সবচেয়ে বড় সমস্যা হচ্ছে পার্কিং-এর সমস্যা। আগরতলা শহরের যানজট ও পার্কিং সমস্যা নিরসনে স্মার্ট সিটি মিশন একটা প্রকল্প হাতে নিয়েছে। মোটর স্ট্যান্ডে তার কাজ চলছে। শিশু উদ্যানের কাজও প্রায় সম্পন্ন হওয়ার পথে। হরি গঙ্গাবসাক রোড থেকে পূর্ব থানার পিছনের ড্রেন নির্মাণের কাজ এখনো চলছে। অ্যালবার্ট এক্কা মেমোরিয়াল পার্কের কাজ আগেই সম্পন্ন হয়ে গেছে। বোধজং চৌমুহনি থেকে মহিলা মহাবিদ্যালয় পর্যন্ত রাস্তাটিকে প্লাস্টিক ব্যবহার করে তৈরি করা হয়েছে। লিচু বাগান থেকে এম বি বি বিমানবন্দর পর্যন্ত রাস্তাটি ৪ লাইন করার কাজ চলছে। সমগ্র আগরতলা শহরে ২৩ কিলোমিটার স্মার্ট রোড নির্মাণ করা হবে। স্মার্ট সিটি প্রকল্পে আগরতলা শহরে ব্যয় করা হবে ১হাজার ৩৮ কোটি ৯২ লক্ষ টাকা। ইতিমধ্যে বনমালীপুরে ১৭৫ কোটি টাকার কাজ সম্পন্ন হয়ে গেছে। আরও ৪৯২ কোটি টাকার কাজ সহসাই। সব মিলিয়ে বনমালীপুরে স্মার্ট সিটি প্রকল্পে ৬৬৭ কোটি ৩০ লক্ষ টাকার কাজ হবে। সরকার নাগরিক পরিষেবা দিতে বদ্ধপরিকর। সেদিকে গুরুত্ব দিয়ে মিশন মুডে কাজ চলছে। অনুষ্ঠানে এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন মন্ত্রী মনোজ কান্তি দেব, বিধায়ক ডাঃ দিলীপ দাস, মেয়র দীপক মজুমদার সহ অন্যান্য প্রশাসনিক আধিকারিকরা।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য