Wednesday, June 29, 2022
বাড়িরাজ্যরাজ্যে ফিরলেন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব, উষ্ণ অভ্যর্থনা আগরতলা বিমানবন্দরে

রাজ্যে ফিরলেন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব, উষ্ণ অভ্যর্থনা আগরতলা বিমানবন্দরে

আগরতলা, ৬ জুন (হি.স.) : রাজ্যে ফিরে কর্মীদের মধ্যে বিপুল উৎসাহ ও উদ্দীপনা লক্ষ্য করলেন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লবকুমার দেব। দলীয় কর্মী-সমর্থকরা তাঁকে উষ্ণ অভ্যর্থনায় কাছে টেনে নিলেন। এমবিবি বিমানবন্দরে থেকে সরকারি বাসভবন পর্যন্ত তাঁকে নিয়ে জন-উচ্ছ্বাস প্রমাণ করেছে জনপ্রিয়তা একবিন্দুও কমেনি তাঁর। সরকারি বাসভবনে প্রবেশের মুখে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বিপ্লবের দাবি, দলের কর্মীরাই তাঁর এবং দলের মূল শক্তি। উপনির্বাচনে বিরোধীদের সাথে উন্নয়ন নিয়ে লড়াই হবে। মানুষ উন্নয়নের নিরিখেই মূল্যায়ন করবেন।

বেশ কয়েকদিন বহিঃরাজ্যে কাটিয়ে আজ সোমবার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লবকুমার দেব ত্রিপুরায় ফিরেছেন। তাঁকে ঘিরে এমবিবি বিমানবন্দরে কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে বিপুল উৎসাহ ও উদ্দীপনা দেখা গিয়েছে। হুড খোলা গাড়িতে দাঁড়িয়ে বাইক মিছিল তাঁকে বিমানবন্দর থেকে তাঁর সরকারি বাস ভবনে এনেছে।এদিন তিনি বলেন, বিজেপি কর্মীরাই দল এবং তাঁর মূল শক্তি। পৃষ্ঠাপ্রমুখ থেকে শুরু করে সকল কার্যকর্তা তাঁকে শক্তি যুগাচ্ছেন। তাঁর দাবি, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর দিশা নির্দেশনায় ত্রিপুরার উন্নয়নে মুখ্যমন্ত্রী পদে ব্রতী ছিলাম। এখন সংগঠনের দায়িত্বে দলকে আরও এগিয়ে নিয়ে যাব।

তাঁর কথায়, গত চার বছরে কাজের নিরিখেই মানুষ মূল্যায়ন করবেন। ত্রিপুরায় উন্নয়নের ধারা শুরু হয়েছে, বিজেপি পরিচালিত সরকার তা আরও ত্বরান্বিত করবে। যুব এবং মাতৃশক্তি বিজেপিকে ত্রিপুরার উন্নয়নে সহযোগিতা করবে। প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর দাবি, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের ত্রিপুরাকে শ্রেষ্ট রাজ্য হিসেবে গড়ে তোলার স্বপ্ন অবশ্যই বাস্তাবয়িত হবে।বিপ্লব বলেন, ত্রিপুরায় পরিবর্তন হয়েছে। এখন মানুষ ইতিবাচক চিন্তাধারা নিয়ে এগিয়ে চলেছেন। যুব প্রজন্মের মনে নতুন আশা জেগেছে। তাই চাকরি পাওয়ার প্রত্যাশার বদলে দেওয়ার সুযোগ তৈরি হয়েছে। এদিন তিনি জানান, উপনির্বাচনে প্রত্যেক কার্যকর্তার কাছে যাব। আমার এবং বিজেপির প্রতি মানুষের উন্মাদনা একই রয়েছে। তাই উপনির্বাচনে বিরোধীদের সাথে উন্নয়ন নিয়ে লড়াই হবে।

তাঁর বক্তব্য, মানুষের সমালোচনা থাকবেই। তাতে হতাশ হওয়ার কিছু দেখতে পাচ্ছি না। আমার পক্ষে কিংবা বিপক্ষে আলোচনায় সকলকেই সমানভাবে সম্মান করি। শুধু তা-ই নয়, তাঁদের সুন্দর ভবিষ্যতও কামনা করি, বলেন বিপ্লব দেব।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য