Friday, May 31, 2024
বাড়িখেলাপ্যারিসের দর্শকদের প্রেরণায় ফাইনালের ছবি আঁকছে পিএসজি

প্যারিসের দর্শকদের প্রেরণায় ফাইনালের ছবি আঁকছে পিএসজি

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক। আগরতলা। ২ মে : চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমি-ফাইনালের প্রথম লেগে বুধবার বরুশিয়া ডর্টমুন্ডের মাঠে পিএসজি হেরেছে ১-০  গোলে।আগের দুই ধাপেই দ্বিতীয় লেগ প্রতিপক্ষের মাঠে খেলতে হয়েছে পিএসজিকে। শেষ ষোলোয় নিজেদের মাঠে জয়ের পর রেয়াল সোসিয়েদাদের মাঠ থেকেও জয় নিয়ে ফেরে এনরিকের দল। তবে তাদের কঠিন চ্যালেঞ্জ ছিল বার্সেলোনার বিপক্ষে কোয়ার্টার-ফাইনালে। প্রথম লেগে নিজেদের মাঠে ৩-২ গোলে হেরে গিয়েছিল পিএসজি। তবে বার্সেলোনায় গিয়ে কাতালানদের ৪-১ গোলে বিধ্বস্ত করে তারা ঠিকই পৌঁছে যায় সেমি-ফাইনালের মঞ্চে।  এবার ডর্টমুন্ডের মাঠে প্রথম লেগে হেরে তাই ভড়কে যাচ্ছেন না এনরিকে। সুযোগগুলো কাজে লাগাতে না পারার আক্ষেপ তার আছে। তবে পিএসজি কোচ আশাবাদী, ঘরের মাঠে প্রত্যাশিত ফল পাবেন তারা। 

“সমান তালের এক লড়াই আমরা দেখেছি আজকে, বল পায়ে দুই দলই ভালো ফুটবল খেলেছে। উভয় দলই অনেক সুযোগ তৈরি করেছে গোলের। এবার আমাদের প্রতিপক্ষ গোল করেছে, আমরা পারিনি। ফলাফলেই ফুটে উঠছে, কতটা কাছাকাছি ছিল দুই দল।”“সবশেষ দুই রাউন্ডে তারা (প্রতিপক্ষ) ঘরের মাঠে পেয়েছে দ্বিতীয় লেগের ম্যাচ। এবার উল্টো, আমরা খেলব ঘরের মাঠে। এটা ভিন্ন ও নতুন পরিস্থিতি। দ্বিতীয় লেগে ঘরের মাঠের দর্শকদের পাশে পাব আমরা। যে সুযোগগুলো আমরা আমরা তৈরি করেছি আজকে, তা কাজে লাগাতে পারলে ভালো লাগত। তবে সেজন্য আরও কার্যকর হতে হবে। দেখা যাক, প্যারিসে আমরা কোন রূপে নিজেদের মেলে ধরতে পারি।”কোচের আক্ষেপ গোল করতে না পারায়, অধিনায়কের খেদ গোল হজম করায়। হয়তো ডিফেন্ডার বলেই ওই গোলটি মানতে কষ্ট হচ্ছে তার। লম্বা পাস থেকে বল পেয়ে প্রথমার্ধে গোল করেন নিকলাস ফুয়েলখুগ। বরুশিয়ার এরকম চেষ্টা থামিয়ে দিতে প্রস্তুতিও ছিল পিএসজির। কিন্তু ম্যাচে সেটি শতভাগ কাজে লাগাতে না পারায় হতাশ মার্কিনিয়োস। 

“আমরা এমন একটি গোল হজম করেছি, যা করা উচিত হয়নি। বরুশিয়ার এসব লম্বা পাস নিয়ে আলোচনা আমরা সপ্তাহজুড়েই করে আসছিলাম। বিস্তারিত এই ব্যাপারগুলিই বড় পার্থক্য গড়ে দেয় এবং ফাইনালে যেতে পরের ম্যাচে আমাদেরকে আরও ভালো করতেই হবে।”সামনে তাকিয়ে অবশ্য কোচের কথার সুরই শোনা গেল অধিনায়কের কণ্ঠে। প্যারিসে ঘরের মাঠে জিতে ফাইনালে খেলতে প্রবল আশাবাদী মার্কিনিয়োস। “১-০ গোলে পিছিয়ে থেকে আগেও আমরা ফিরে এসেছি। আমরা দেখিয়েছি, এটা আমরা করতে পারি। বিশেষ করে, ঘরের মাঠে নিজেদের দর্শকদের প্রাণশক্তিকে সঙ্গী করে চিত্রটি হবে পুরোই ভিন্ন। আমরা আরও অনেক ভালো করতে পারি। স্রেফ সুযোগগুলো কাজে লাগাতে হবে আমাদের এবং আরও কার্যকর হতে হবে।”পরের লেগে দুই দল মুখোমুখি হবে আগামী মঙ্গলবার। 

সম্পরকিত প্রবন্ধ

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য