Tuesday, July 16, 2024
বাড়িখেলাওয়ানডেতে লাবুশেনের পথের সমাপ্তি নয় এখানেই

ওয়ানডেতে লাবুশেনের পথের সমাপ্তি নয় এখানেই

স্যন্দন ডিজিটেল ডেস্ক,৮ আগস্ট: ভারতে অনুষ্ঠেয় বিশ্বকাপের জন্য ১৮ সদস্যের যে বর্ধিত দল ঘোষণা করেছে অস্ট্রেলিয়া, সেখানে জায়গা পাননি লাবুশেন। বিশ্বকাপের আগে দক্ষিণ আফ্রিকা ও ভারতের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজও খেলবে এই দলটিই। এই দলে পরিবর্তন আনার সুযোগ যদিও আছে। তবে সেটির বাস্তবতা সম্ভাবনা খুবই সামান্য। অতি নাটকীয় কিছু না হলে তাই বিশ্বকাপ খেলা হচ্ছে না লাবুশেনর। প্রধান নির্বাচক বেইলি জানালেন, মূলত ধারাবাহিকতার অভাবেই বাদ দেওয়া হয়েছে লাবুশেনকে। “এই সিদ্ধান্ত মূলত ফর্ম ভিত্তিক। আমরা জানি, নিজের সেরা ফর্মে থাকলে ওয়ানডে দলে একটি জায়গা ধরে রাখার মতো যথেষ্ট সামর্থ্য মার্নাসের আছে। তবে আমরা তাকে যে ভূমিকায় চাই, সেখানে তাকে যথেষ্ট ধারাবাহিক দেখতে পাইনি। বিশ্বকাপের দিকে এগিয়ে যাওয়ার পথে অন্যদের সামনে তাই সুযোগ কিছু ম্যাচ খেলার।” ২০২০ সালে অভিষেক থেকে শুরু করে এই পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ার ৩৮ ওয়ানডের ৩০টিই খেলেছেন লাবুশেন। খেলেছেন দলের সবশেষ ৯ ম্যাচেও। কিন্তু ফর্ম তার শুরুর মতো নেই। ক্যারিয়ারের প্রথম ৬ ইনিংসে একটি সেঞ্চুরি ও দুটি ফিফটি ছাড়াও আরও দুই ইনিংসে ৪০ ছুঁয়েছিলেন।

 কিন্তু পরে হারিয়ে ফেলেন ধারাবাহিকতা। সবশেষ ১৪ ইনিংসে তো তার ব্যাটিং গড় কেবল ২২.৩০ ও স্ট্রাইক রেট মোটে ৬৯.৮৭। তবে বিশ্বকাপে জায়গা না পেলেও ওয়ানডে দলের সামনের পথচলার পরিকল্পনায় লাবুশেন প্রবলভাবেই আছেন বলে দাবি করলেন বেইলি। ২৯ বছর বয়সী ব্যাটসম্যানের সঙ্গে এটা নিয়ে খোলামেলা আলোচনা হয়েছেন বলেও জানালেন প্রধান নির্বাচক। “মার্নাসের সঙ্গে আমাদের পরিষ্কার আলোচনা হয়েছে। অস্ট্রেলিয়া ‘এ’ দলের অংশ হবে সে, যাতে সাদা বলের ক্রিকেটে কিছুটা মনোযোগ দিতে পারে। দক্ষিণ আফ্রিকায় যে স্কোয়াড যাচ্ছে, নিশ্চিতভাবেই বিশ্বকাপেও সেই স্কোয়াডই প্রাধান্য পাবে। তবে মার্নাসের যে বয়স, তার যে স্কিল সেট, আমার কোনো সন্দেহই নেই যে ভবিষ্যতে ওয়ানডে দলের অংশ সে হবে। আমরা জানি, নিজের সেরা ফর্মে থাকলে সে ওয়ানডেতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে।”

 আগামী মাসেই নিউ জিল্যান্ড ‘এ’ দলের বিপক্ষে ৩ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলবে অস্ট্রেলিয়া। সেখানে রাখা হবে লাবুশেনকে। এরপর ঘরোয়া ওয়ানডে টুর্নামেন্ট মার্শ কাপে খেলবেন তিনি কুইন্সল্যান্ডের হয়ে।লাবুশেনের হয়ে আরেকটি মন্দের ভালো, বিশ্বকাপে না থাকায় প্রথম শ্রেণির ক্রিকেট টুর্নামেন্ট শেফিল্ড শিল্ডে খেলতে পারবেন তিনি। সদ্য সমাপ্ত অ্যাশেজ তার মানের বিবেচনায় ভালো কাটেনি মোটেও। ৩২৮ রান করেছেন তিনি ৩২.৭৯ গড়ে। আগামী টেস্ট মৌসুমের আগে তাই নিজেকে ঝালিয়ে নিতে পারবেন শেফিল্ড শিল্ডে খেলে।”

সম্পরকিত প্রবন্ধ

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য