Wednesday, February 28, 2024
বাড়িজাতীয়বেলা ১২টা থেকে শুরু হবে রামলালার প্রাণপ্রতিষ্ঠার ধর্মীয় আচার

বেলা ১২টা থেকে শুরু হবে রামলালার প্রাণপ্রতিষ্ঠার ধর্মীয় আচার

রামমন্দিরের উদ্বোধনের সাক্ষী হতে হাজির তারকা ক্রীড়াবিদরা। সস্ত্রীক হাজির হয়েছেন শচীন তেণ্ডুলকর। প্রাক্তন ভারতীয় অধিনায়ক অনিল কুম্বলে প্রথমবারের জন্য পাড়ি দিয়েছেন অযোধ্যায়। এছাড়াও রয়েছেন প্রাক্তন ক্রিকেটার মিতালি রাজ, ব্যাডমিন্টন তারকা সাইনা নেহওয়াল।

হেলিকপ্টারে চেপে অযোধ্যার দিকে রওনা দিলেন প্রধানমন্ত্রী। বেলা ১২টার পরেই শুরু হবে প্রাণপ্রতিষ্ঠার আচার। মোট ১৫ জন যজমানের হাত ধরে প্রাণ পাবেন রামলালা। আরতির সময়ে গোটা অযোধ্যা জুড়ে পুষ্পবৃষ্টি করবে সেনার কপ্টার। ৮৪ সেকেন্ডের মাহেন্দ্রক্ষণেই প্রাণপ্রতিষ্ঠা হবে রামলালার। অন্যদিকে, রামমন্দিরের উদ্বোধনের আগে বিশেষ আলোর সাজে সেজে উঠেছে নেপালের জনকপুরের জানকী মন্দিরে।

অযোধ্যায় পৌঁছলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। হেলিপ্যাড থেকেই রামমন্দিরের দিকে রওনা দেবেন তিনি। সেখানে যজমান হিসাবে রামলালার প্রাণপ্রতিষ্ঠা করবেন প্রধানমন্ত্রী। প্রাণপ্রতিষ্ঠা অনুষ্ঠানে যোগ দিতে অযোধ্যা পৌঁছেছেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী এইচ ডি দেবগৌড়াও। তবে অসুস্থতার কারণে অনুষ্ঠানে যোগ দিতে পারেননি মনমোহন সিং। অযোধ্যায় পৌঁছেছেন আরএসএস প্রধান মোহন ভাগবত। উপস্থিত যোগগুরু রামদেবও। 

রামমন্দিরে পৌঁছলেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। মন্দিরে পৌঁছে গিয়েছেন অমিতাভ বচ্চন, অনিল আম্বানির মতো বিখ্যাতরাও। গোটা অযোধ্যা জুড়ে কার্যত বন্ধ হয়ে গিয়েছে আমিষ খাবার। রেস্তরাঁ বা অনলাইন ফুড ডেলিভারি অ্যাপ-সব জায়গাতেই মিলছে নিরামিষম খাবার। 

রামমন্দিরের উদ্বোধন উপলক্ষে দেশের বিভিন্ন রাজ্য থেকে সাধু-সাধ্বীরা উপস্থিত হয়েছেন অযোধ্যায়। ভক্তদের আগমন হয়েছে বিদেশ থেকেও। তার মধ্যেই রয়েছে ব্রিটেন থেকে আগত সাধ্বীদের দল। গেরুয়া বস্ত্র পরিহিতা ওই সাধ্বীরা এসেছেন লন্ডন থেকে।

রামমন্দিরে পৌঁছে গিয়েছেন বলিউড অভিনেতা ভিকি কৌশল এবং তাঁর স্ত্রী তথা অভিনেত্রী ক্যাটরিনা কইফ। সাদা কুর্তা-পাজামা পরেছেন ভিকি। ক্যাটরিনা পরেছেন উজ্জ্বল সোনালি রঙের শাড়ি।

 একে একে তারকা অতিথিরা আসতে শুরু করেছেন রামমন্দির প্রাঙ্গণে। পৌঁছে গিয়েছেন বলিউড তারকা অমিতাভ বচ্চন এবং অভিষেক বচ্চন। 

রামের ভজনে উঠেছে নিউ ইয়র্কের টাইমস স্কোয়্যার। সেখানে রামমন্দিরের প্রাণপ্রতিষ্ঠার সরাসরি সম্প্রচার হবে। অন্যদিকে, উদ্বোধনের আগে ফুল দিয়ে সাজিয়ে তোলা হয়েছে গোটা মন্দির। শুরু হয়েছে পুজোর প্রক্রিয়াও। উৎসবে মেতে উঠেছে অযোধ্যা-সহ গোটা দেশ। রবিবার বিশেষ আলোর সাজে সেজে উঠেছিল মুকেশ আম্বানির বাড়িও। 

মোট ৫০টি দেশের প্রতিনিধিকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। সকলেই রামমন্দির উদ্বোধনে হাজির থাকবেন বলে জানা গিয়েছে। কড়া নিরাপত্তায় মুড়ে ফেলা হয়েছে গোটা অযোধ্যা। উত্তরপ্রদেশ পুলিশের পাশাপাশি র‍্যাফ, বিশেষ কমান্ডো বাহিনীও মোতায়েন করা হয়েছে।

রামমন্দির উদ্বোধনের দিন অযোধ্যায় ঝলমলে আবহাওয়া। সকালের দিকে হালকা কুয়াশা ছিল। বেলা বাড়তেই তা কেটে যায়। তবে সোমবার অযোধ্যায় বেশ ঠান্ডা। আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সর্বোচ্চ ১৭ ডিগ্রির বেশি পারদ উঠবে না।

অযোধ্যায় পৌঁছে গিয়েছেন বলিউডের একাধিক তারকা। তার মধ্যে রয়েছেন রণবীর কাপুর। নীতীশ তিওয়ারির রামায়ণ ছবিতে রামের ভূমিকায় দেখা যেতে পারে তাঁকে। সেই সঙ্গে আলিয়া ভাট, আয়ুষ্মান খুরানা, ভিকি কৌশল, ক্যাটরিনা কাইফ-সহ একঝাঁক তারকাকে। 

রামমন্দিরের উদ্বোধন উপলক্ষে ভারতকে শুভেচ্ছা ইজরায়েলের। ভারতে নিযুক্ত সেদেশের রাষ্ট্রদূত নাওর গিলন। তিনি বলেন, “রামমন্দিরের প্রাণপ্রতিষ্ঠা উপলক্ষে সকল ভারতবাসীকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন। বিশ্বের সমস্ত ভক্তদের জন্য এটা বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ। রামমন্দির দর্শনের জন্য মুখিয়ে রয়েছি।

রামমন্দির উদ্বোধন উপলক্ষে অযোধ্যায় আগত সাধু, অতিথিদের স্বাগত জানালেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। সেই সঙ্গে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকেও স্বাগত জানিয়ে বার্তা দিয়েছেন তিনি। ‘দেশের সাংস্কৃতিক পুনর্জাগরণের শিল্পী’ বলে অভিনন্দন জানিয়েছেন মোদিকে। 

মুখ‌্যমন্ত্রীর নির্দেশে উত্তরপ্রদেশের সংস্কৃতি দপ্তর যে জাঁকজমক অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে তা চোখে পড়ার মতো। যে পথে আসবেন প্রধানমন্ত্রী, তাঁকে অনুষ্ঠানে স্বাগত জানাতে ১০০টি মঞ্চে ২৫০০ জন লোকশিল্পী সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করবেন। অযোধ‌্যার ত্রেতা যুগের মহিমা প্রদর্শন করতে নাচ-গানে বিভিন্ন রূপ তুলে ধরবেন ওই শিল্পীরা। গত ২১ জানুয়ারি ইতিমধ্যেই হয়ে গিয়েছে মহড়া। বিশাল মন্দিরে ভগবান রামকেও এই শিল্পীরা তাঁদের সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মাধ‌্যমে স্বাগত জানাবেন বলে জানিয়েছেন মুখ‌্যমন্ত্রী যোগী আদিত‌্যনাথ।

আজ সকাল ১০.৫৫ মিনিটে রাম জন্মভূমিতে পৌঁছবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তার পর বেলা ১২.০৫ থেকে ১২.৫৫ পর্যন্ত চলবে প্রাণপ্রতিষ্ঠার মূল অনুষ্ঠান। দুপুর ১২.৫৫ মিনিটে প্রাণপ্রতিষ্ঠা পর্ব শেষ করে উপাসনাস্থল ছাড়বেন মোদি। দুপুর ‌১টা থেকে ২টোর মধ্যে মন্দির ছেড়ে বেরিয়ে জনসভায় বক্তব্য রাখবেন প্রধানমন্ত্রী। তার পর দুপুর ২.১০ নাগাদ কুবের টিলায় শিবমন্দিরে পুজো দিয়ে অযোধ্যা ছাড়বেন তিনি।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য