Friday, May 31, 2024
বাড়িবিশ্ব সংবাদজেলেনস্কিকে ‘হত্যার ষড়যন্ত্রে’ পোল্যান্ডের নাগরিক গ্রেপ্তার

জেলেনস্কিকে ‘হত্যার ষড়যন্ত্রে’ পোল্যান্ডের নাগরিক গ্রেপ্তার

স্যন্দন ডিজিটেল ডেস্ক, ২০ এপ্রিল: ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কিকে সম্ভাব্য হত্যাচেষ্টার অংশ হিসেবে রুশ সরকারের পক্ষে গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে পোল্যান্ডের এক নাগরিককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পোল্যান্ড ও ইউক্রেনের শীর্ষস্থানীয় কৌঁসুলিরা গত বৃহস্পতিবার এ তথ্য জানিয়েছেন।এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে পোল্যান্ডের ন্যাশনাল প্রসিকিউটরস অফিস বলেছে, পাওয়েল কে নামে শনাক্ত করা ওই নাগরিকের বিরুদ্ধে পোল্যান্ডের বিরুদ্ধে বিদেশি গোয়েন্দা সংস্থার হয়ে কাজ করার প্রস্তুতির অভিযোগ আনা হয়েছে।পোল্যান্ডের ওই নাগরিককে গত বুধবার গ্রেপ্তার করা হয়েছে ও তাঁর ব্যাপারে তদন্ত চলছে। দোষী সাব্যস্ত হলে আট বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড হতে পারে তাঁর।

এদিকে ইউক্রেনের প্রসিকিউটর জেনারেল অ্যান্ড্রি কোস্টিনের তথ্য অনুসারে, গ্রেপ্তার সন্দেহভাজন ব্যক্তির বিরুদ্ধে অভিযোগ, তিনি রাশিয়ার সামরিক কমান্ডের প্রতিনিধিদের সঙ্গে সক্রিয়ভাবে যোগাযোগ প্রতিষ্ঠা করেন এবং রুশ বৈদেশিক সামরিক গোয়েন্দা সংস্থার সঙ্গে সহযোগিতা করার বিষয়ে তাঁর প্রস্তুতির কথা জানান।পোল্যান্ড ও ইউক্রেনীয় কর্মকর্তারা বলেন, রাশিয়ার সরকারের পক্ষে সন্দেহভাজন ওই ব্যক্তির সম্ভাব্য কাজের মধ্যে ছিল, পোল্যান্ডের দক্ষিণ–পূর্বাঞ্চলীয় জাসিওনকা শহরে রেজ ডব্লিউ–জাসিওনকা আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের নিরাপত্তাব্যবস্থা–সংক্রান্ত তথ্য সংগ্রহ ও তা রুশ সামরিক গোয়েন্দা সংস্থাকে সরবরাহ করা।এ বিষয়ে এক্স হ্যান্ডলে (সাবেক টুইটার) এক বিবৃতিতে ইউক্রেনের প্রসিকিউটর জেনারেল কোস্টিন লেখেন, পোল্যান্ড সফরে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কিকে রাশিয়ার বিশেষ বাহিনীর সদস্যদের সম্ভাব্য হত্যাচেষ্টার পরিকল্পনায় সহায়তা করাই ছিল ওই তথ্য সংগ্রহ ও সরবরাহ করার উদ্দেশ্য।

পোলিশ ন্যাশনাল প্রসিকিউটরস অফিস তার বিজ্ঞপ্তিতে বলেছে, ইউক্রেনের প্রসিকিউটর জেনারেলের দপ্তর সন্দেহভাজন ব্যক্তির বিষয়ে তাদের তথ্য ও নিজস্ব তদন্তে পাওয়া গুরুত্বপূর্ণ প্রমাণ সরবরাহ করেছে। অফিস আরও জানায়, পোল্যান্ডের ওই নাগরিককে গত বুধবার গ্রেপ্তার করা হয়েছে ও তাঁর ব্যাপারে তদন্ত চলছে। দোষী সাব্যস্ত হলে আট বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড হতে পারে তাঁর।প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি সর্বশেষ গত বছরের এপ্রিলে পোল্যান্ড সফর করেন। সফরে দেশটির প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেজ দুদা ও জনগণের পক্ষ থেকে ব্যাপক সংবর্ধনা পান তিনি।পোল্যান্ড ইউক্রেনের পশ্চিম সীমান্তে অবস্থিত। ইউক্রেনে রাশিয়ার সামরিক অভিযান শুরুর পর প্রথম দিকে অনেক ইউক্রেনীয় পালিয়ে পোল্যান্ডে আশ্রয় নেন।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য