Monday, April 15, 2024
বাড়িবিশ্ব সংবাদপ্রেসিডেন্ট ভোটে তাণ্ডব রাশিয়ায়

প্রেসিডেন্ট ভোটে তাণ্ডব রাশিয়ায়

স্যন্দন ডিজিটেল ডেস্ক, ১৭ মার্চ : রাশিয়ায় প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রথম দিনে ভোট কেন্দ্রে তাণ্ডব চালানোর অভিযোগে অন্তত আট জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে প্রশাসনের তরফে জানানো হয়েছে। তবে বেসরকারি সূত্রের দাবি, সংখ্যাটা আরও বেশি। সূত্রের দাবি, ভ্লাদিমির পুতিনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদের উদ্দেশেই পরিকল্পিত ভাবে গন্ডগোল চালানো হয়। সরকারি সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, ব্যালট বাক্সে সবুজ রং ফেলা থেকে ঝামেলার সূত্রপাত। এর পরে ব্যালটও জ্বালিয়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। পরিস্থিতি সামলাতে দ্রুত পুলিশ ডাকা হয়। বিস্ফোরণেরও খবর মিলেছে।

রাশিয়ায় তিন দিন ধরে ভোটগ্রহণ চলবে। যা শেষ হচ্ছে রবিবার। তবে ফলাফল নিয়ে চমকের আশা দেখছেন না কেউই। চলতি ভোটে জিতে ভ্লাদিমির পুতিনের আরও এক বার মসনদ দখল কার্যত নিশ্চিত। অ্যালেক্সেই নাভালনির মৃত্যুর পরে সেই অর্থে পুতিনের বড় কোনও প্রতিপক্ষও নেই এ বারের নির্বাচনে। সরকারি সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, মস্কোয় আজ দুপুর পর্যন্ত ভোট পড়েছে ২৩ শতাংশ। বেশির ভাগ গন্ডগোলের ঘটনাই মস্কোয় ঘটেছে। এ ছাড়া দক্ষিণ রাশিয়ার ভোরোনেজ় এবং উত্তর ককেশাস অঞ্চলে কারাচায়-চার্কেসিয়া অঞ্চলেও বেশ কিছু অশান্তির ঘটনা ঘটেছে।

একটি ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমের দাবি, রাশিয়ায় তাণ্ডবের অন্তত ছ’টি ঘটনার ফুটেজ খতিয়ে দেখেছে তারা। তার মধ্যে রয়েছে একটি ভিডিয়োও। সেখানে দেখা গিয়েছে, সেন্ট পিটার্সবার্গের ভোট কেন্দ্রের কাছে এক মহিলা পেট্রল বোমা ছুড়ছে। আরও বেশ কিছু ভিডিয়োতেও দেখা যায়, ভোট কেন্দ্রের ব্যালট বাক্সে রং ঢেলে দেওয়া হচ্ছে। এমনই এক ভিডিয়োয় দেখা যাচ্ছে, মস্কোর একটি ভোট কেন্দ্রে ব্যালট বাক্সের উপরে সবুজ রং ঢেলে দিচ্ছে এক মহিলা।

রাশিয়ার মূল ভূখণ্ডের পাশাপাশি ইউক্রেনে রুশ অধিকৃত অঞ্চলেও ভোট দিয়েছেন নাগরিকেরা। এমনই এক ছোট শহর স্ক্যাডোভস্কের এক আধিকারিক জানিয়েছেন, ভোট কেন্দ্রের সামনের একটি জঞ্জালের পাত্রে আইইডি বিস্ফোরণ হয়। তবে এই ঘটনায় কেউ হতাহত হননি।

এখনও পর্যন্ত গন্ডগোলের অভিযোগে অন্তত আট জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তবে পুতিন বিরোধী বিক্ষোভের জন্যই তাঁদের গ্রেফতার করা হয়েছে কি না, তা স্পষ্ট নয়। তবে কয়েকটি ভিডিয়োয় দেখা গিয়েছে, তাণ্ডবকারীরা ইউক্রেনের পক্ষে স্লোগান দিয়েছেন।

শুক্রবার রাশিয়ার কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিটির ডেপুটি চেয়ারম্যান নিকোলাই বুলায়েভ জানিয়েছেন, পাঁচটি ঘটনা সামনে এসেছে। যেখানে ব্যালট বাক্সে তরল রং ঢেলে দেওয়া হয়েছে। স্থানীয় এক সংবাদমাধ্যমের দাবি, ‘জ়েলইয়োঙ্কা ডাই’ নামে এক সবুজ তরল ব্যবহার করা হয়েছে। যা মূলত অ্যান্টিসেপ্টিক সলিউশন। অধিকাংশ রুশ-ইউক্রেন সংক্রান্ত প্রতিবাদেই এই তরল ব্যবহার করে থাকেন বিক্ষোভকারীরা।

নির্বাচন কমিশনের প্রধান এলা প্যামফিলভা নাশকতাকারীদের বখাটে বলে উল্লেখ করেছেন। জানিয়েছেন, গ্রেফতার হওয়া অধিকাংশ বিক্ষোভকারীই কবুল করেছে, টাকার জন্যই তাণ্ডব চালিয়েছে তারা। তাদের পাঁচ বছর পর্যন্ত কারাবাস হতে পারে। এমনই এক বিক্ষোভকারীকে এক লক্ষ রুবল (১০৮০ ডলার) দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল।

গত মাসেই আর্কটিক জেলে মৃত্যু হওয়া নাভালনির স্ত্রী য়ুলিয়া নাভালনিয়া ক্রেমলিনে
বসবাসকারী পুতিন বিরোধীদের ভোট কেন্দ্রের বাইরে প্রতিবাদে শামিল হওয়ার ডাক দিয়েছিলেন। নাভালনি-পত্নীর দাবি, পশ্চিমি দুনিয়া পুতিনের পঞ্চম দফার শাসনকে স্বীকৃতি দিচ্ছে না। নেটোর সেক্রেটারি জেনারেলও জানিয়েছেন, রাশিয়ায় ভোটগ্রহণ অবাধ ও স্বচ্ছ নয়।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য