Friday, May 31, 2024
বাড়িরাজ্যগাঁজা পাচারের সময় আটক ২

গাঁজা পাচারের সময় আটক ২

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক। আগরতলা। ১৪ মে :               

গাঁজা কান্ডে পুলিশের হাতে ধৃত দুই। এই গাঁজার মালিক সনক চৌধুরী। সে দীর্ঘদিন ধরে গাঁজার ব্যবসার সাথে জড়িত। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মহকুমা পুলিশ আধিকারিক গাঁজা সহ আটক করে সনক চৌধুরী ও পরিমল দেবনাথকে। এই দুজনের বাড়ি বড়পাথরী এলাকায়। জানা যায় ঋষ্যমুখ ব্লকের নলুয়া এলাকার উদ্দেশ্যে গাঁজার বস্তা নিয়ে যাওয়ার সময় ঝড়ঝড়ি এলাকায় প্রথমে পুলিশ আটক করলো সনক চৌধুরীকে।

গাঁজার মালিক সনক তার TR 08 B 0468 নম্বরের টাটা টিগোর গাড়ি নিয়ে গাঁজা ভর্তি ম্যাক্স গাড়ির সামনে সামনে প্রহরীর মতই ম্যাক্স গাড়ির চালকের সাথে ফোন কলে রেখে যাচ্ছিলো। যাতে গাঁজাগুলি নিশ্চিতভাবে গন্তব্যস্থানে পৌঁছাতে পারে। এর মাঝেই আটক করে ফেলে পুলিশ সনককে। আর সনক থেকে সিজ করে নেওয়া হয় তার মোবাইল ফোনটি। যার ফলে ম্যাক্স গাড়ির চালক এবং সামনের গাড়িতে থাকা গাঁজার মালিক সনকের মধ্যে যে ফোনে কথোপকথন তা বিচ্ছেদ হয়ে যায়। আর সনক আটক হওয়ার ৫-৭ মিনিটের মধ্যেই পুলিশের সামনে চলে আসে সে গাঁজা ভর্তি ম্যাক্স গাড়ি নিয়ে গাড়ির চালক। গাঁজা ভর্তি ম্যাক্স গাড়ির চালক সনককে পুলিশ আটক করেছে দেখে ম্যাক্স গাড়ির চালক পরিমল গাড়ি নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে।

  সঙ্গে সঙ্গে TR033424 ম্যাক্স গাড়ির পিছু ধাওয়া করে মহকুমা পুলিশ আধিকারিক অভিজিৎ দাস। এই গাঁজা ভর্তি গাড়িটি প্রথমে জোলাইবাড়ি,বাইখোরা হয়ে আবার মুহুরীপুর হয়ে বিলোনিয়ার দিকে আসার সময় শেষ মেশ রতনপুর এলাকায় গাঁজা সহ গাড়ির চালক পরিমল দেবনাথকে আটক করতে সক্ষম হয়। এই ম্যাক্স গাড়ি থেকে চার বস্তায় মোট ৯৯ কেজি গাঁজা উদ্ধার করে বিলোনিয়া মহকুমা পুলিশ আধিকারিকের নেতৃত্বে।‌ গাঁজা কারবারি সনক চৌধুরী আবার বড়পাথরী এলাকার বিজেপি নেতা স্বপন চৌধুরীর ছেলে। এই সনক আবার ফার্মাসিস্টও। 

সম্পরকিত প্রবন্ধ

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য