Monday, February 6, 2023
বাড়িরাজ্যকংগ্রেস কর্মীর পরিবারের উপর বাইক বাহিনীর অতর্কিত হামলা

কংগ্রেস কর্মীর পরিবারের উপর বাইক বাহিনীর অতর্কিত হামলা

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক। আগরতলা। ২০ ডিসেম্বর :  প্রধানমন্ত্রী সফরের ৪৮ ঘন্টা অতিক্রান্ত না হতেই শাসক দলের সন্ত্রাস আবারো মাথা ছাড়া দিয়েছে। বিরোধী দলের কর্মী সমর্থকদের উপর চলছে অতর্কিত হামলা। দিশেহারা এই বিজেপি কাছে এবার প্রধান বিরোধীদল সিপিআইএমের মতো কংগ্রেসও। গত কয়েক মাসে কংগ্রেসের উত্থান দেখে শাসকদলের অন্দরে ভূকম্প সৃষ্টি হয়ে গেছে। নিয়ন্ত্রণে নেই দলের কর্মী সমর্থক।

 চোখে শস্য ফুল দেখে আবারো বাইক বাহিনীর তাণ্ডব শুরু করেছে বিজেপি। কংগ্রেস করায় সোমবার রাতে বাইক বাহিনীর এক পরিবারের উপর অতর্কিত হামলা চালায়। রেহাই পায় নি বাড়ির অতীত পর্যন্ত। ঘটনা উদয়পুর মাতাবাড়ি বিধানসভা কেন্দ্রের কালাবন এলাকার মলিন দাসের বাড়িতে। বাইক বাহিনীর হামলায় মলিন দাসের পা ভেঙে যায়, আক্রান্তের শিকার তার স্ত্রীও। রক্ষা পাইনি বাড়িতে আসা অতিথ। বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন কংগ্রেস কর্মীর পরিবার। আহত পরিবারকে মঙ্গলবার সকালে গুমতি জেলা হাসপাতালে দেখতে যান জেলা কংগ্রেস সভাপতি টিটন পাল সহ অন্যান্য কর্মীরা। জেলা কংগ্রেস সভাপতি টিটন পাল জানান, কংগ্রেস করায় মলিন দাসের বাড়িতে বিজেপির দুর্বৃত্তরা হামলা চালায়। গুরুতর আহত হয়েছে গোটা পরিবার। শাসক দলের বাইক বাহিনীতে নেতৃত্ব দিয়েছেন সুমিত বৈদ্য। সুমিত বৈদ্য আবার ভারতীয় সেনাবাহিনীতে কর্মরত। তার নেতৃত্বে একদল গুন্ডাবাহিনী মলিন দাসের বুকে এবং পায়ের লোহার রড দিয়ে আঘাত করে গুরুতর জখম করেছে। এবং মলিন দাসের স্ত্রীকে দা দিয়ে আঘাত করেছে। তারা বর্তমানে জেলা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। অভিযুক্ত সকলের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করা হবে। যদি ২৪ ঘন্টার মধ্যে অভিযুক্তদের গ্রেফতার না করা হয়, তাহলে বৃহত্তর আন্দোলনে নামবে বলে হুঁশিয়ারি দেন। তবে এ ধরনের সন্ত্রাস দলকে কতটা মাইলেজ দেবে সেটা এখন বড় প্রশ্ন হয়ে দাঁড়িয়েছে। নির্বাচনী নির্ঘণ্ট ঘোষণা হওয়ার আগেই দল যে দিশেহারা তা বারংবার স্পষ্ট হয়ে যাচ্ছে। এমনটাই মনে করছে রাজনৈতিক অভিজ্ঞ মহল।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য