Saturday, June 15, 2024
বাড়িখেলামেসিকে বিশ্রাম দেওয়ায় প্রতিপক্ষের সমর্থকদের মাঝে অসন্তোষ-ক্ষোভ!

মেসিকে বিশ্রাম দেওয়ায় প্রতিপক্ষের সমর্থকদের মাঝে অসন্তোষ-ক্ষোভ!

স্যন্দন ডিজিটেল ডেস্ক, ২৫ মে: রোববার সকালে কানাডিয়ান ক্লাব ভ্যানকুভারের মাঠে নামবে মায়ামি। মেজর সকার লিগের এই ম্যাচে কেবল মেসিকে নয়, লুইস সুয়ারেস ও সের্হিও বুসকেতসকেও বিশ্রাম দিয়েছেন দলটির কোচ জেরার্দো মার্তিনো।বলার অপেক্ষা রাখে না, সমর্থকরা অসন্তুষ্ট হয়ে উঠেছেন মূলত মেসিকে দেখতে না পাওয়ার খবরে। তবে কোচের জায়গা থেকে সবার আগে খেলোয়াড়দের ফিটনেসকে গুরুত্ব দেওয়ার কথা শুক্রবার সাংবাদিকদের বলেন মার্তিনো।“গতকাল আমরা অনুশীলন করেছি। শেষ করার পর আমি কোচিং স্টাফদের সঙ্গে আলোচনা করেছিলাম এবং খেলোয়াড়দের সঙ্গে কথা বলেছিলাম। তখনই সিদ্ধান্ত নেই যে (আসছে ম্যাচে) তারা দলের অংশ হবে না।”“মানুষের হতাশা আমরা বুঝতে পারছি, কারণ বিশেষ করে তারা এই খেলোয়াড়দের দেখতে চায়। তবে কোচিং স্টাফ হিসেবে এই অস্বস্তিকর সিদ্ধান্ত নেওয়াই আমাদের কাজ।”

মেসি-সুয়ারেসদের মতো তারকা খেলোয়াড়রা যে কেবল মাঠে নয়, মাঠের বাইরেও লিগে নানারকম ইতিবাচক প্রভাব ফেলে, তা বোঝেন মার্তিনো। তবে, সবকিছুর ওপরে খেলোয়াড়দের জন্য যেটা ভালো, সেটা করাই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করেন তিনি।“২০ দিনের নোটিসে আমরা আমাদের কর্মকাণ্ড কী হবে, তা জানাতে পারি না। আমরা এই পরিস্থিতি বৃহস্পতিবার পর্যালোচনা করেছি, কারণ এক সপ্তাহে আমাদের তিনটি ম্যাচ খেলতে হচ্ছে। তবে কখনও কখনও দুর্ভাগ্যজনক কিছু ঘটে, যার ফলে খেলোয়াড়রা বিশেষ কোনো ম্যাচে খেলতে পারে না।”

ভ্যানকুভার হোয়াইটক্যাপস বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে সমর্থকদেরকে সতর্ক করে দেয় এই বলে যে, তারা যেন আসছে ম্যাচে মেসি, সুয়ারেস ও বুসকেতসের উপস্থিতির আশা না করে। এ বিষয়ে ক্লাবটির সিইও আক্সেল সুশটারের কথায়ও যেন কিছুটা হতাশা মিলে রইল।“এই সপ্তাহান্তের ম্যাচে লিওনেল মেসি, লুইস সুয়ারেস ও সের্হিও বুসকেতসের খেলার বিষয়ে যখন আমরা কোনো আনুষ্ঠানিক খবর পেলাম না, তখনই বুঝতে পারলাম যে, তারা এই সফরে আসবে না। দুর্ভাগ্যজনকভাবে, প্রতিপক্ষ দলে কে খেলবে, তার ওপর আমাদের কোনো নিয়ন্ত্রণ নেই এবং যত দ্রুত সম্ভব বিষয়টি আমাদের সমর্থকদের জানানো গুরুত্বপূর্ণ ছিল।”

ভ্যানকুভার আশা করছে, আসছে ম্যাচে ক্লাবের এমএলএস যুগের রেকর্ড দর্শক মাঠে আসতে পারে। সংখ্যাটা ছাড়িয়ে যেতে পারে ৫০ হাজার। কিন্তু মেসি-সুয়ারেসরা না থাকায় তাদের অসন্তোষ উঠতে পারে চরমে। সমর্থকদের হতাশা কিছুটা কমাতে স্টেডিয়ামের মধ্যে খাবার ও পানীয়ের ওপর ৫০ শতাংশ ছাড় দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে কর্তৃপক্ষ।কিন্তু কোনোকিছুতেই যেন শান্ত করা যাচ্ছে না অনেক চড়া দামে ম্যাচের টিকেট করা ক্ষুব্ধ দর্শকদের।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য