Wednesday, November 30, 2022
বাড়িজাতীয় রাইসিনা হিলসের লড়াই; রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ভোটগ্রহণ সমাপ্ত, ২১ জুলাই ফল ঘোষণা

 রাইসিনা হিলসের লড়াই; রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ভোটগ্রহণ সমাপ্ত, ২১ জুলাই ফল ঘোষণা



নয়াদিল্লি, ১৮ জুলাই (হি.স.) : প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী থেকে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং, ষোড়শ রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য ভোট দিলেন দেশের সাংসদ ও বিধায়করা। দিল্লিতে সংসদ ভবন এবং সমস্ত রাজ্যের বিধানসভা ভবনে ভোটাধিকার প্রয়োগ করছেন সাংসদ ও বিধায়করা। ভোট গ্রহণ শুরু হয় সোমবার সকাল ১০ টায়, চলে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত। রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে এনডিএ জোটের পদপ্রার্থী দ্রৌপদী মুর্মু বনাম বিরোধীদের প্রার্থী যশবন্ত সিন্‌হার লড়াইয়ে দেশের প্রায় ৪,৮০০ জন সাংসদ ও বিধায়ক ভোট দেন। রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে দ্রৌপদী মুর্মুর জয়ী হওয়া সময়ের অপেক্ষা বলেও মনে করছে রাজনৈতিক মহল। নির্বাচন জেতার জন্য প্রার্থীকে পাঁচ লক্ষ ৪৩ হাজার ২১৬ ভোট পেতে হবে। ২১ জুলাই ফল ঘোষণা করা হবে। ২৫ জুলাই শপথ নেপেন নতুন রাষ্ট্রপতি।

রাষ্ট্রপতি পদপ্রার্থী ঘোষিত হওয়ার পর থেকেই গোটা দেশজুড়ে সমর্থনের জন্য প্রচার করেছেন দ্রৌপদী মুর্মু, বিরোধী শিবিরের প্রার্থী যশবন্ত সিন্‌হাও গোটা দেশ জুড়ে প্রচার করেছেন। বিজেপি শিবির মনে করছে, দ্রৌপদী মুর্মুই হতে চলেছেন দেশের পরবর্তী রাষ্ট্রপতি। বিজেপি তথা এনডিএ-র বাইরেও বিজেডি, ওয়াইএসআর কংগ্রেস, বিএসপি, তেলুগু দেশম, জেডিএস, অকালি দল, শিবসেনা, জেএমএম মুর্মুকে সমর্থন করছেন। এর বাইরে অন্য দলের অনেকে মুর্মুকে ভোট দিতে পারেন। তাই তাঁর জয়ের বিষয়ে অনেকেই আশাবাদী।

এদিন সকালে ভোটগ্রহণ শুরু হওয়ার কিছুক্ষণের মধ্যেই রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য ভোট দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ভোট দিয়েছেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ও কংগ্রেস নেতা মনমোহন সিং। বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডা, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ, প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং, রাজ্যসভার ডেপুটি চেয়ারম্যান হরিবংশ প্রমুখ ভোট দেন। সংসদ ভবনে ভোট দেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অনুরাগ সিং ঠাকুর, বিজেপি সাংসদ হেমা মালিনী, যশবন্ত সিনহার ছেলে বিজেপি সাংসদ জয়ন্ত সিনহা, কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী কিরেণ রিজিজু, কংগ্রেস সাংসদ রণদীপ সিং সুরজেওয়ালা, সমাজবাদী পার্টির সাংসদ জয়া বচ্চন, কংগ্রেস সাংসদ পি চিদম্বরম, ন্যাশনাল কনফারেন্সের ফারুক আব্দুল্লাহ প্রমুখ। রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ভোট দিয়েছেন কংগ্রেসের অন্তর্বর্তী সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী, কংগ্রেস সাংসদ রাহুল গান্ধী, শশী থারুর, দ্বিগ্বিজয় সিং। ভোট দিয়েছেন আম আদমি পার্টির সাংসদ হরভজন সিং, বিজেপি সাংসদ গৌতম গম্ভীর প্রমুখ।


তামিলনাড়ুর মুখ্যমন্ত্রী এম কে স্ট্যালিন, পশ্চিমবঙ্গে রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য ভোট দিয়েছেন সে রাজ্যের বিধায়করা। সময়ের এক ঘণ্টা আগেই পশ্চিমবঙ্গে শেষ রাষ্ট্রপতি নির্বাচন পর্ব! ভোট দেন ২৯১ জন বিধায়ক। ২৯৩ জন বিধায়কের মধ্যে ২৯১ জন বিধায়ক ভোট দিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গে। ভোট দিতে আসেননি তৃণমূলের বিধায়ত রফিকুল ইসলাম মণ্ডল। ভাঙরের বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকিও অনুপস্থিত। অন্যদিকে, উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথও ভোট দিয়েছেন, নতুন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য ভোট দিয়েছেন গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী ভূপেন্দ্র প্যাটেল প্রমুখ। ভোটদান চলবে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত। ২১ জুলাই রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের ভোটগণনা, সংসদের সেন্ট্রাল হলে নির্বাচিত রাষ্ট্রপতির শপথ গ্রহণ ২৫ জুলাই। ইম্ফলের মণিপুর বিধানসভা সচিবালয়ে ভারতের পরবর্তী রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য ভোটগ্রহণ চলে। ওড়িশায় ষোড়শ রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের ভোট দেন মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েক। তেলেঙ্গানা বিধানসভাতেও সকাল থেকে ভোট দেন বিধায়করা।

দিল্লিতে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের জন্য ভোট দেন মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল, উপ-মুখ্যমন্ত্রী মণীশ সিসোদিয়া ও অন্যান্য বিধায়করা। রাজস্থান বিধানসভায় ভোট দেন সে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী অশোক গেহলট। অন্ধ্রপ্রদেশে রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য প্রথম ভোট দিয়েছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী জগন মোহন রেড্ডি। সোমবার সকাল দশটা থেকে শুরু হয় রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের ভোটগ্রহণ, সর্বপ্রথম ভোট দেন মুখ্যমন্ত্রী ওয়াই এস জগন মোহন রেড্ডি। এরপরই স্পিকার তাম্মিনেনি সীতারাম ভোট দেন। বাকি মন্ত্রী তারপর একে-একে ভোট দেন।

মধ্যপ্রদেশে রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য ভোট দেন মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহান ও রাজ্যের বিধায়করা। ভোট দিয়েছেন উত্তরাখণ্ডের মুখ্যমন্ত্রী পুষ্কর সিং ধামিও। চন্ডীগড়েও এদিন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের ভোটগ্রহণ হয়। মহারাষ্ট্রে ভোট দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী একনাথ শিন্ডে। অখিলেশ যাদব ভোট দেওয়ার পর জানান, তিনি যশবন্ত সিনহাকেই ভোট দিয়েছেন। হিমাচল প্রদেশে ভোট দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী জয়রাম ঠাকুর। গোয়ায় ভোট দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী প্রমোদ সাওয়ান্ত ও অন্যান্য বিধায়করা। অসমে রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য ভোট দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্ব শর্মা। কেরলে ভোট দেন মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়ন।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য