Tuesday, July 23, 2024
বাড়িরাজ্যআবারো ধরা পড়ল ১১ জন বাংলাদেশী

আবারো ধরা পড়ল ১১ জন বাংলাদেশী

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক। আগরতলা। ১ জুলাই : মানব পাচারে ঝুঁকি বাড়াচ্ছে ত্রিপুরার সীমান্ত। কেন্দ্রীয় বাহিনীর দায়িত্ব পালনে চরম দুর্বলতার কারণে মানব পাচারে করিডোর হয়ে উঠছে ত্রিপুরা। রাজ্যের তিন দিকে রয়েছে বাংলাদেশ সিমান্ত। বংলাদেস থেকে অবৈধ ভাবে বাংলাদেশী নাগরিকরা রাজ্যে প্রবেশ করছে দালাল চক্রের হাত ধরে। তারপর দালাল চক্রের হাত ধরে তারা পৌঁছে যাচ্ছে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে। মানব পাচারের করিডোর হিসাবে পরিচিত ত্রিপুরা রাজ্যে আবারো ধরা পড়ল ১১ জন বাংলাদেশী নাগরিক।

রবিবার বিকালে আগরতলা রেল স্টেশন থেকে এই বাংলাদেশী নাগরিকদের আটক করে আগরতলা জিআরপি থানার পুলিশ। আগরতলা জিআরপি থানার ওসি তাপস দাস জানান ধৃত বাংলাদেশী নাগরিকদের সাথে বেশ কয়েকটি শিশুও রয়েছে। তারা অবৈধভাবে রাজ্যে এসেছে। রেলে করে তারা দেশের বিভিন্ন রাজ্যে যেতে চেয়েছিল। সোমবার ধৃতদের আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। তিনি আরও জানান জুন মাসে ৩৯ জন বাংলাদেশী নাগরিককে আটক করে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। তাদের সাথে ৫ জন শিশু ছিল। পাশাপাশি মানব পাচারের সাথে যুক্ত ৫ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল

। ধৃত মানব পাচারকারীদের জেলে রেখে দফায় দফায় জিজ্ঞাসাবাদ চালানো হচ্ছে। তাদের কাছ থেকে পাওয়া তথ্য যাচাই করে দেখা হচ্ছে বলেও জানান তিনি। রবিবার বিকালে আগরতলা রেল স্টেশন থেকে ধৃত বাংলাদেশী নাগরিকদের মধ্যে বেশ কয়েকজন মহিলা রয়েছে। সূত্রের খবর দালাল চক্র অধিক বেতনের প্রলোভন দিয়ে বাংলাদেশী মহিলাদের অবৈধ ভাবে রাজ্যে নিয়ে আসে। তারপর তাদেরকে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে নিয়ে গিয়ে অসামাজিক কাজে লিপ্ত করা হয়। যদিও আরক্ষা প্রশাসনের নজরে রয়েছে বিষয়টি। আরক্ষা প্রশাসন মানব পাচার রুখতে আপ্রান চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। এখন দেখার আরক্ষা প্রশাসন মানব পাচার ও বাংলাদেশী নাগরিকদের অবৈধ অনুপ্রবেশ রুখতে সক্ষম হয় কিনা।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য