Thursday, July 25, 2024
বাড়িরাজ্যআদালতে বিচারপতির সামনে রক্তাক্ত আসামী

আদালতে বিচারপতির সামনে রক্তাক্ত আসামী

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক। আগরতলা। ২৫ জানুয়ারি : আদালতে বিচারপতির সামনে রক্তাক্ত আসামী। জানা যায়, ধলাই জেলার ছৈলেংটা থানাধীন এলাকায় ২০২২ সালের আগস্ট মাসে এক যুবক অন্য ব্যক্তির স্ত্রীকে বল পূর্বক ধর্ষণ করে, সেই সময় মহিলার স্বামী বাঁধা দিতে আসতেই ধর্ষক সুজিত ত্রিপুরা তাকে খুন করে পালিয়ে যায়।

এই মর্মে ছৈলেংটা থানায় ধর্ষণ এবং খুনের মামলা হয় অভিযুক্ত সুজিত ত্রিপুরার বিরুদ্ধে। দীর্ঘদিন মামলার তদন্তকারী অফিসার পার্থ প্রতিম রিয়াং তদন্ত করে আদালতে চার্জশিট জমা দেন। মামলা চলাকালীন মোট ১৯ জনের সাক্ষ্যদানের পর ধলাই জেলা ও দায়রা আদালতের বিচারপতি গৌতম সরকার আদালতে অভিযুক্ত সুজিত ত্রিপুরা দোষী সাব্যস্ত হয়। বৃহস্পতিবার ছিল রায় ঘোষণার দিন, এদিন বাদি বিবাদী উভয় পক্ষের সাওয়াল জবাবের পর অভিযুক্ত সুজিত ত্রিপুরাকে দোষী সাব্যস্ত করে যাবজ্জীবন কারাদন্ডের নির্দেশ দিয়েছেন বিচারপতি।

চুড়ান্ত রায় ঘোষণা হতেই আদালতে বিচারপতির সামনে আসামী সুজিত ত্রিপুরা নিজেকে রক্তাক্ত করে। খবর দেওয়া হয় দমকল কর্মীদের, এগিয়ে আসেন খোদ বিচারপতি গৌতম সরকার, আদালত চত্বরে শুরু হয় দৌড়ঝাঁপ। কিন্তু অবাক করার বিষয় হল দমকল কর্মীরা প্রায় চল্লিশ মিনিট পরে ঘটনাস্থলে পৌঁছে। এর মধ্যে পুলিশের গাড়ি দিয়ে আহত আসামীকে ধলাই জেলা হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যায়। গোটা ঘটনায় আদালতে চত্বরে ব্যাপক গুঞ্জন সৃষ্টি হয়েছে বলে খবর।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য