Wednesday, April 24, 2024
বাড়িরাজ্যহাসপাতালে ধন্ধুমার কান্ড স্বামী-স্ত্রীর

হাসপাতালে ধন্ধুমার কান্ড স্বামী-স্ত্রীর

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক। আগরতলা। ৩০ জুলাই : স্বামীর নিত্যদিনের অত্যাচারে রক্তাক্ত হচ্ছেন স্ত্রী। রবিবার রক্তাক্ত স্ত্রী হাসপাতালের অভ্যন্তরে প্রকাশ্যে স্বামীকে দিলেন উত্তম মাধ্যম। উত্তম মধ্যম খেয়ে স্বামী হাসপাতাল চত্বর থেকে পালিয়ে যায়। তাদের বাড়ি খোয়াই বারবিল গ্রামের ঋষি পাড়ায়। জানা যায়, রবিবার দুপুরে স্বামী বিপুল মনি দাস আস্ত একটা ইট দিয়ে স্ত্রীর মাথা থেতলিয়ে দেয় স্বামী বিপুল মুনি দাস। সেই সঙ্গে স্ত্রীর হাতে কামড় দেয় স্বামী।

 রক্তাক্ত অবস্থায় আহত স্ত্রীকে খোয়াই জেলা হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে অতিষ্ঠ স্ত্রী তার স্বামীকে ধরে দেয় উত্তম মাধ্যম। হাসপাতালের চিকিৎসকরা স্ত্রীর মাথায় বেশ কয়েকটি সেলাই দিয়ে ভর্তি করার পরামর্শ দেন। এই ঘটনার পর খবর পেয়ে ছুটে যায় পুলিশ। পুলিশ আসার আগেই স্বামী বিপুল মনি দাস স্ত্রীর জন্য ওষুধ আনার প্রেসক্রিপশন নিয়ে হাসপাতাল চত্বর থেকে পালিয়ে যায়। খোয়াই বারবিল গ্রামের ঋষিপাড়ায় বিপুল মনি দাসের বাড়ি। ১৩ বছর পূর্বে সুপর্ণা সঙ্গে বিপুলের বিয়ে হয়।

সুপর্ণার বাপের বাড়ি আগরতলা টাউন প্রতাপগড়ে। বর্তমানে তাদের দুটি সন্তানও রয়েছে। তাদের অভিযোগ করছেন শনিবার রাতেও তাদের মাকে মারধর করেছে বাবা। এবং রবিবার সকালে ইট দিয়ে তার মায়ের মাথা থেতলে দেয়। এই ঘটনায় পুলিশ নির্যাতিতা মহিলার নিকট থেকে অভিযোগ গ্রহণ করেন। পুলিশ অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করার জন্য চেষ্টা করছে।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য