Tuesday, April 16, 2024
বাড়িখেলাপেনাল্টিতে ব্যর্থ হলেও পিএসজিকে ফাইনালে তুললেন এমবাপে

পেনাল্টিতে ব্যর্থ হলেও পিএসজিকে ফাইনালে তুললেন এমবাপে

স্যন্দন ডিজিটেল ডেস্ক,৪ এপ্রিল: স্তাদ রেনেকে ১-০ গোলে হারিয়ে ফরাসি কাপের ফাইনালে পা রাখে পিএসজি। ঘরের মাঠে সেমি-ফাইনালের ৪০তম মিনিটে গোলটি করেন এমবাপে।ফরাসি কাপে রেকর্ড ১৪ বারের চ্যাম্পিয়ন পিএসজি আরও একটি শিরোপা আশায় মাঠে নামবে ২৫ মে। সেখানে তাদের প্রতিপক্ষ অলিম্পিক লিওঁ।রেনের বিপক্ষে ম্যাচের ৮০ শতাংশ সময় বল ছিল পিএসজির কাছে। পাস দিয়েছে তারা প্রতিপক্ষের দ্বিগুনের অনেক বেশি। ৯১ শতাংশ পাসই ছিল নিখুঁত। লক্ষ্যে শট নিতে পারে তারা অবশ্য গোটা ম্যাচে ৬টি। সেখান থেকেই একটি কাজে লাগান এমবাপে।ওই গোলের আগেই আরেকটি গোলের সুবর্ণ সুযোগ আসে তার জন্য। ৩৭তম মিনিটে পেনাল্টি পায় পিএসজি। কিন্তু এমবাপের শট ঠেকিয়ে দেন রেনের গোলকিপার স্তিভ মাদাদা।হতাশ গ্যালারিকে মিনিট তিনেক পরই উল্লাসে ভাসান এমবাপে। ফাবিয়ান রুইসের পাস থেকে বল জালে পাঠান ২৫ বছর বয়সী তারকা।দ্বিতীয়ার্ধে আক্রমণে জোর বাড়ায় রেনে। কিন্তু পিএসজির রক্ষণে চিড় ধরাতে পারেনি। পিএসজির কয়েকটি আক্রমণ বাধা পায় রেনে গোলকিপার মাদাদার দেয়ালে।ম্যাচশেষে পিএসজি কোচ লুইস এনরিকে প্রতিপক্ষ গোলকিপারকে কৃতিত্ব দিলেন জয়ের ব্যবধান আরও বেশি না হওয়ার জন্য।

“প্রথমার্ধ কঠিন ছিল আমাদের জন্য, তবে ম্যাচজুড়ে পুরোপুরি দাপট ছিল আমাদের। রেনে খুব ভালো খেলেছে। প্রথমার্ধে আমাদের খেলায় গতি ছিল অনেক এবং দ্বিতীয়ার্ধে আমাদের সুযোগ ছিল গোলের ব্যবধান বাড়ানোর। তবে মাদাদা দারুণ খেলে আমাদের আটকে রেখেছে।”“যে কোনো দেশেই কাপ প্রতিযোগিতা খুব গুরুত্বপূর্ণ এবং মৌসুমের শুরু থেকেই এই টুর্নামেন্টে চোখ ছিল আমাদের।” আগামী বুধবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগে কোয়ার্টার-ফাইনালের প্রথম লেগে বার্সেলোনার মুখোমুখি হবে পিএসজি। ফুটবল ক্যারিয়ারের সবচেয়ে বেশি সময় বার্সেলোনাতেই খেলেছেন এনরিকে, প্রিয় এই ক্লাবকে কোচিং করিয়েছেন তিন বছর। তার জন্য ম্যাচটি হবে বিশেষ কিছু। তবে পিএসজি কোচ মনে করিয়ে দিলেন, চ্যাম্পিয়ন্স লিগের আগে নিজ দেশের লিগেও ম্যাচ আছে তাদের।“চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ম্যাচের আগে ক্লেহমোকেঁ (লিগ ওয়ানে) নিয়ে ভাবতে হবে আমাদের। শনিবার তাদের সঙ্গে খেলা এবং সব প্রতিযোগিতায় সর্বোচ্চ পারফর্ম করা আমাদের ক্লাবের জন্য গুরুত্বপূর্ণ।”“আমার সাবেক দলের বিপক্ষে খেলাটা হবে দারুণ। আমার চাওয়া, আমরা যেন লড়াই করতে পারি ও ভালো একটি ম্যাচ উপহার দিতে পারি।”

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য