Tuesday, May 28, 2024
বাড়িজাতীয়মহাকাশ বিজ্ঞানে নতুন ইতিহাস রচনা করল ভারত

মহাকাশ বিজ্ঞানে নতুন ইতিহাস রচনা করল ভারত

নয়াদিল্লি, ২৩ আগস্ট (হি.স.) : চাঁদের মাটিতে ল্যাণ্ডার বিক্রমের সফল অবতরণ হল। নির্দিষ্ট সময়েই চাঁদের বুকে নামে ল্যাণ্ডার বিক্রম। বুধবার সন্ধ্যে ৬টা ৪ মিনিটে অবতরণ হয় বিক্রমের। মহাকাশ বিজ্ঞানে নতুন ইতিহাস রচনা করেছে ভারত।প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এপ্রসঙ্গে বক্তৃতা দিতে গিয়ে বলেন, বিশ্বের কোনও দেশ এখনও পর্যন্ত চাঁদে পৌঁছোতে পারেনি। এই কর্মকাণ্ডের জন্য দেশের বৈজ্ঞানিকদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

জানা গিয়েছে, এখন চাঁদের মাটিতে শক্তি সঞ্চয় করছে বিক্রম। ঘন্টা দুয়েক পরে সূর্য থেকে শক্তি সঞ্চয় করে ল্যাণ্ডার রোভার থেকে নামবে প্রজ্ঞান।১৪ জুলাই শ্রীহরিকোটার সতীশ ধাওয়ান স্পেস সেন্টার থেকে ইসরোর চন্দ্রযান-৩ চাঁদের উদ্দেশে পাড়ি দিয়েছিল। ইসরো প্রকাশ করেছে সেসব ছবি। ধীরে ধীরে তা পৃথিবীর কক্ষপথে প্রবেশ করে এবং কক্ষপথ উত্তোলন করা হতে থাকে। গত ৫ আগস্ট তা চাঁদের কক্ষপথে প্রবেশ করেছে।

এরপর লাট্টুর মতো পাক খেতে খেতে তা পৌঁছে গিয়েছে চাঁদের একেবারে ওপরে। কক্ষপথের একের পর এক ছবি ধরা পড়েছে ল্যান্ডারের ক্যামেরায়। ইসরো-র এই মিশনের জন্য খরচ হতে চলেছে ৬১৫ কোটি টাকা। চাঁদে পা রাখার সময় যত এগিয়েছে দেশবাসীর আবেগ এবং উদ্বেগ ততই বেড়েছে। চন্দ্রযান-২-এর ব্যর্থতার পর চন্দ্রযান ৩ যাতে সফল হয় তার জন্য দেশের প্রতিটি মানুষ প্রার্থনায় ব্যস্ত। কোথাও চলছে হোমযজ্ঞ, কোথাও নমাজপাঠ আবার কোথাও দরগায় চাদর চড়ানো হচ্ছে। প্রতিটা মুহূর্তে স্নায়ুর লড়াই ছিল ইসরোর বিজ্ঞানীদের। অবশেষে চাঁদের মাটিতে পা রাখল চন্দ্রযান-৩।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য