Saturday, December 3, 2022
বাড়িবিশ্ব সংবাদরাশিয়া অধিকৃত চার ইউক্রেইনীয় অঞ্চলে সামরিক আইন জারি

রাশিয়া অধিকৃত চার ইউক্রেইনীয় অঞ্চলে সামরিক আইন জারি

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক, আগরতলা,২০ অক্টোবর: ইউক্রেইনের যে চার অঞ্চল রাশিয়া নিজেদের বলে ঘোষণা করেছে, সেসব অঞ্চলে সামরিক আইন জারি করেছেন প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন।বুধবার রাশিয়ার নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে পুতিন এই আদেশ জারির ঘোষণা দেন। চারটি অঞ্চল হল: দোনৎস্ক, লুহান্সক, খেরসন ও জাপোরিজিয়া।টিভিতে সম্প্রচারিত ওই বৈঠকে পুতিন বলেন, “রাশিয়া ফেডারেশনের এই চার জায়গায় সামরিক আইন জারি করতে আমি ডিক্রি সই করেছি।”এরপর ক্রেমলিন সেই ডিক্রি প্রকাশ করে জানায়, বৃহস্পতিবার থেকে এ আইন কার্যকর হবে।রাশিয়ার নিয়মানুযায়ী, সামরিক আইনের (মার্শাল ল) আওতায় সামরিক বাহিনীকে শক্তিশালী করা, কারফিউ জারি, মানুষের চলাফেরায় কড়াকড়ি, নিয়ন্ত্রণ আরোপ এবং বিদেশি নাগরিদের আটকের মতো পদক্ষেপ নেওয়া হয়।প্রেসিডেন্ট পুতিন বলেছেন, “রাশিয়ার ভবিষ্যতের নিরাপত্তা এবং সুরক্ষা নিশ্চিত করতে আমরা ব্যাপক-পরিসরে খুবই দুরূহ কাজ সমাধা করা নিয়ে কাজ করছি।”গত মাসে ইউক্রেইনের ওই চার অঞ্চল নিজেদের বলে ঘোষণা করে রাশিয়া। এর জবাবে অঞ্চলগুলোতে পাল্টাহামলা জোরদার করেছে ইউক্রেইন। এই হামলার মুখে খেরসন থেকে রাশিয়া অধিবাসীদের সরিয়েও নিচ্ছে।এমন পরিস্থিতিতেই বুধবার অঞ্চলগুলোতে সামরিক আইন জারির পদক্ষেপ নিলেন পুতিন। এর মধ্য দিয়ে তিনি আংশিকভাবে দখলে থাকা চার অঞ্চলে রাশিয়ার নিয়ন্ত্রণ আরও পাকাপোক্ত করে সেগুলোকে পুরোপুরি বাগে আনতে চাইছেন বলেই মনে করা হচ্ছে।পুতিন বুধবার এই সামরিক আইন জারির পাশাপাশি ইউক্রেইন সংলগ্ন আট অঞ্চলেও মানুষের চলাফেরার ওপর কড়াকড়ি আরোপ করে একটি ডিক্রি জারি করেছেন।এর আওতায় কিছু অধিবাসীকে নিরাপদ এলাকায় সরিয়ে নেওয়া, অঞ্চলগুলোতে মানুষের ঢোকা ও বের হওয়ার সময় তল্লাশি এবং অবকাঠামো নিরাপত্তা জোরদারের পদক্ষেপ নেওয়া হতে পারে।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য