Tuesday, July 23, 2024
বাড়িরাজ্যশুধু আইন দিয়ে ভোক্তা অধিকার নিশ্চিত করা সম্ভব নয়, সকল নাগরিককে সচেতন...

শুধু আইন দিয়ে ভোক্তা অধিকার নিশ্চিত করা সম্ভব নয়, সকল নাগরিককে সচেতন হতে হবে : সুশান্ত

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক। আগরতলা। ২৫ জুন : বর্তমান সরকার জনগণের সরকার। সরকারের চালিকা শক্তি মন্ত্রী ও বিভিন্ন দপ্তরের আধিকারিকরা। কিন্তু জনগণকে সজাগ থাকতে হবে। তারা যখন বাজারে যাবে তখন সচেতন হয়ে জিনিসপত্র ক্রয় করতে হবে। মঙ্গলবার রবীন্দ্র শতবার্ষিকী ভবনে ভোক্তা সচেতন মূলক আলোচনা চক্র ও ওপেন ক্যুইজ প্রতিযোগিতায় বক্তব্য রেখে এই কথা বলেন মন্ত্রী সুশান্ত চৌধুরী। খাদ্য, জনসংভরণ ও ক্রেতা স্বার্থ বিষয়ক দপ্তর কর্তৃক আয়োজিত অনুষ্ঠানে মন্ত্রী সুশান্ত চৌধুরী আরো বলেন, শুধু আইন দিয়ে ভোক্তা অধিকার নিশ্চিত করা সম্ভব নয়।

ক্রেতাদের যেমন নিজেদের অধিকার সম্বন্ধে সচেতন হতে হবে, তেমনি ব্যবসায়ীদের আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল থেকে মানবিক মূল্যবোধের পরিচয় দিতে হবে। মন্ত্রী বলেন, বহু বিষয় রয়েছে সেসব বিষয়ে মানুষ ওয়াকিবহুল নয়। কিন্তু এর জন্য নিজেকে সচেতন করা এবং ওয়াকি বহল করা বিষয়টা নিজেকেই করতে হয়। সরকার এবং দপ্তর মানুষের পাশে থেকে সমর্থন করবে। কিন্তু একজন মানুষকে এই ওয়াকিবহাল হওয়ার বিষয়ে বাধ্য করতে পারে না বলে জানান মন্ত্রী সুশান্ত চৌধুরী। মন্ত্রী বলেন, একটি রেস্টুরেন্টে গেলে কোন খাবার খাওয়ার পর যদি অতিরিক্ত বিল আসে, তাহলে কেন অতিরিক্ত বিল নেওয়া হয়েছে সেই বিষয়ে জানতে চাওয়া হয় না রেস্টুরেন্টের কর্তৃপক্ষের কাছে।

কিন্তু একজন সচেতন নাগরিক এবং সচেতন ভোক্তা অধিকার রয়েছে রেস্টুরেন্ট কর্তৃপক্ষ যদি খাবারে কম দেয় বা অতিরিক্ত মূল্য রাখে তাহলে সেটা কেন রাখা হয়েছে বা অতিরিক্ত বিলের তুলনায় খাবার দেওয়া হয়নি সে বিষয়টা নিয়ে প্রশ্ন করতে পারে। একইভাবে বাজারে গেলে বিক্রেতার দ্বারা মেয়াদ উত্তীর্ণ জিনিস বিক্রি বিষয়ে এবং অতিরিক্ত মূল্য রাখার বিষয়ে প্রতিবাদ করতে হবে সচেতন নাগরিককে। এতে যদি বাধা হয় কোন ব্যবসায়ী তাহলে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ জানানোর সুবিধা রয়েছে। এর উদাহরণস্বরূপ মন্ত্রী বলেন ২০৯৬ টি মামলা উঠেছিল, তার মধ্যে ২০৫৬ টি মামলা নিষ্পত্তি হয়েছে। বাকি ৪০টি মামলা এখনো পেন্ডিং রয়েছে। সুতরাং সকলে যাতে তার নিজ নিজ অধিকার সম্পর্কে সচেতন থাকে তার জন্য আহ্বান জানান মন্ত্রী। আয়োজিত অনুষ্ঠানে এদিন এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন আগরতলা পুর নিগমের মেয়র দীপক মজুমদার, ত্রিপুরা হাইকোর্টের বিচারপতি অরিন্দম লোধ, খাদ্য, জনসংভরন ও ক্রেতা স্বার্থ বিষয়ক দপ্তরের ভারপ্রাপ্ত অধিকর্তা অনিমেষ দেববর্মা সহ অন্যান্যরা। আয়োজিত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিভিন্ন কলেজের ছাত্র-ছাত্রীরা।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

সবচেয়ে জনপ্রিয়

সাম্প্রতিক মন্তব্য