রাজ্যে অক্সিজেন সিলিন্ডারের দ্বিগুণ ব্যবহার

 

 

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক, ২৮এপ্রিল : দেশে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ চলছে। দিল্লি মহারাষ্ট্র সহ বিভিন্ন রাজ্যে অক্সিজেনের অভাবে বহু মানুষের মৃত্যু হচ্ছে। মৃত্যুপুরীতে পরিণত হয়েছে দিল্লি। কিন্তু সেই তুলনায় রাজ্যে এখনও করোনা নতুন বৈশিষ্ট্যের কোনো প্রভাব পড়েনি। অনেকটা ভালো স্থানে রয়েছে রাজ্য।তবে আগামী দিনে যদি রাজ্যে অক্সিজেন সাপোর্ট রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পায় তাহলে পর্যাপ্ত পরিমানে ব্যবস্থা রয়েছে কিনা তা নিয়ে সচেতন মহলের সৃষ্টি হয়েছে গুঞ্জন।

এবিষয়ে সংবাদ প্রতিনিধি রাজ্যে অক্সিজেন সিলেন্ডার পর্যাপ্ত পরিমাণে রয়েছে কিনা তা অক্সিজেন প্লান্টে বিস্তারিত জানেন। রাজ্যের অক্সিজেন প্ল্যান্টগুলিতে দেখা যায় পর্যাপ্ত পরিমাণে অক্সিজেন উৎপাদন হচ্ছে। ত্রিপুরা এয়ার প্রোডাক্ট ম্যানুফ্যাকচারি ইউনিট প্ল্যান্টে গিয়ে প্রত্যক্ষ করা যায় প্রতিদিন ১৫০-১৭৫ সিলেন্ডার প্লান্ট উৎপাদন হচ্ছে। যদি অক্সিজেনের কোন ধরনের সংকট দেখা দেয় তাহলে সংস্থা কর্তৃপক্ষ রাজ্যের দুঃস্থ মানুষদের বিনামূল্যে পরিষেবা দিতে রাজি। কর্তৃপক্ষ জানান দৈনিক ৫০ শতাংশ অক্সিজেনও ব্যবহার হতো না তাদের প্ল্যান্ট থেকে। পূর্বে রাজ্যের হাসপাতালগুলিতে যে পরিমাণে অক্সিজেন সিলিন্ডার পাঠানো হতো তার থেকে অনেকটাই বৃদ্ধি পেয়েছে বর্তমানে। দৈনিক ১৫০-২০০ অক্সিজেন সিলিন্ডার পাঠানো হচ্ছে হাসপাতালগুলিতে। করোনা রোগীদের জন্য অক্সিজেন সিলেন্ডার পাঠানো সংখ্যা তুলনামূলকভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে।