প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানে কাটছাঁট, প্যারেডেও মানা হবে সামাজিক দূরত্ব

স্যন্দন ডিজিটাল ডেস্ক, ১৯জানুয়ারি: এটা বোধ হয় হওয়ারই ছিল, এবার করোনার কোপ পড়ল প্রজাতন্ত্র দিবসের কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে। সরকারি সূত্রে,  জানা গিয়েছে দিল্লিতে কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে কাটছাঁট করা হবে। দর্শক সংখ্যাও একেবারে কমিয়ে ফেলা হবে।  প্রত্যেক বছর যে পথ হাঁটা হত, সেই পথও কমিয়ে ফেলা হয়েছে অর্ধেকেরও কম। ৮.২ কিলোমিটার থেকে ৩.৩ কিলোমিটার করা হয়েছে। বিজয়চক থেকে ন্যাশেনাল স্টেডিয়াম পর্যন্ত করা হবে প্যারেড। 

প্যারেডেও মানা হবে সামাজিক দূরত্ব। বাহিনীর মধ্যে নির্দিষ্ট দুরত্ব পালন করা হবে। প্রতিটি দলে প্রতিযোগীদের সংখ্যাও ১৪৪ থেকে কমিয়ে ৯৬ করা হচ্ছে।এছাড়া ৮ টি আইসোলেশন এবং রেস্টিং রাখা হচ্ছে। করোনার উপসর্গ থাকলে তাঁকে আইসোলেশনে রাখা হবে। সেখানে ডাক্তার ও স্বাস্থ্যকর্মীদের রাখা হবে। দর্শকদের প্রতি আসনে অ্যান্টি-ভাইরাল এবং ব্যাকটিরিয়া কোটিং স্প্রে করা থাকবে বলে জানা গিয়েছে। মাত্র ২৫ হাজার জন উপস্থিত থাকবে দর্শক স্থানে। যাঁদের বয়স ১৫ হাজারের কম তাঁদের অনুমতী মিলবে না প্রজাতন্ত্র দিবসের কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে। দর্শক স্থানেও থাকবে সামাজিক দূরত্ব। মানা হবে কোভিড প্রোটোকল। মাস্ক পরে থাকতে হবে অনুষ্ঠানে। রাখতে হবে নিজস্ব স্যানিটাইজার। প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানে প্রবেশপথে থাকবে থার্মাল স্ক্রিনিংয়ের ব্যবস্থা।